সারিয়াকান্দিতে পুকুর থেকে ৬০ মণ মাছ লুট

প্রকাশ | ০৬ অক্টোবর ২০১৭, ১৫:১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া

বগুড়ার সারিয়াকান্দি উপজেলার বোহাইল ইউনিয়নের শংকরপুর চরে মুখচেনা কতিপয় ব্যক্তি একটি পুকুর থেকে প্রায় ৬০ মণ মাছ লুট করেছে। ধারালো অস্ত্রের মুখে পুকুরের মালিকের স্ত্রী, বোন ও মাকে জিম্মি করে পিটিয়ে ও হাত-পা বেঁধে মাছ নিয়ে যায়। লুট করা মাছের আনুমানিক বাজার মূল্য দুই লক্ষাধিক টাকা।

এ ঘটনায় পুকুরের মালিক মোস্তাফিজুর রহমান গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে সারিয়াকান্দি থানায় লিখিত অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, জামালপুর জেলার মাদারগঞ্জ উপজেলার আতামারি গ্রামের মোস্তাফিজুর রহমান শংকরপুর চরে তিন একর আয়তনের পুকুরে দীর্ঘদিন ধরে মাছ চাষ করেছেন। গত বুধবার সকাল ৮টার দিকে একই এলাকার আশরাফ আলীর নেতৃত্বে ১০-১২ জনের একটি দল পুকুরে মাছ লুট করতে আসে। বাধা দিলে তারা মোস্তফিজুর রহমানের স্ত্রী আরজিনা বেগম (৩০), মা সাজেদা বেগম (৬০) ও বড় বোন মায়া বেগমকে (৪০) ধারালো অস্ত্রের মুখে ভয় দেখিয়ে হাত-পা বেঁধে ফেলে তাদের মারধর করে। এরপর জাল দিয়ে বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ৬০ মণ মাছ লুট করে নিয়ে যায়। তাদের মারধরে আহত আরজিনা বেগমকে মাদারগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। অন্য দুজনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

সারিয়াকান্দি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) এনায়েতুর রহমান বলেন, ‘অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে তদন্ত করতে এসআই সুব্রতকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। সত্যতা পেলে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’