পরিবেশের পাশে থাকুন

  আয়েশা সিদ্দিকা

১৯ এপ্রিল ২০১৭, ১১:১৬ | আপডেট : ১৯ এপ্রিল ২০১৭, ১১:২৮ | অনলাইন সংস্করণ

পরিবেশের প্রতিটা উপাদানের সুসমন্বিত রূপই হলো সুস্থ পরিবেশ। এই সুসমন্বিত রূপের ব্যতয়ই পরিবেশের দূষণ ঘটায়। প্রাকৃতিক কারণের পাশাপাশি মানবসৃষ্ট কারণও কিন্তু এর জন্য দায়ী। বিভিন্ন কারণেই (বায়ু দূষণ, পানি দূষণ, শব্দ দূষণ প্রভৃতি) পরিবেশ দূষিত হয়। এছাড়া মানুষের দৈনন্দিন কর্মকান্ডে সৃষ্ট বিভিন্ন ক্ষতিকর পদার্থ ও তা নির্গমন স্বাভাবিক পরিবেশের উপর প্রভাব ফেলে। আবার আমাদের নিত্যব্যবহার্য অনেক জিনিসও প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে পরিবেশ দূষণের জন্য দায়ী। এতে শুধু পরিবেশ দূষিত হয়না, একইসঙ্গে জীবজগতের স্বাভাবিক এবং স্বতঃস্ফুর্ত বিকাশও ব্যাহত হয়। কাজেই পরিবেশের দূষণ কমাতে উদ্যোগী হোন। এনার্জি সঞ্চয় করার কথা ভাবুন। আগামী দিনে নিজেকে ভালো রাখার স্বার্থেই পরিবেশ যাতে সুস্থ থাকে সেদিকে নজর দিন।

এক্ষেত্রে পরিবেশের দূষণ কমাতে দৈনন্দিন জীবনে যে কাজগুলো আপনি করতে পারেন-

বার সাবান

লিকুইড সাবান তৈরিতে সাধারণত বার সাবানের তুলনায় পাঁচ গুণ বেশি এনার্জি ক্ষয় হয়। আবার এর কাঁচামাল তৈরিসহ প্যাকেজিং-এর সময়ে প্রায় কুড়ি গুণ বেশি এনার্জি ক্ষয় হয়। এতে করে পরোক্ষভাবে পরিবেশে কার্বনের পরিমাণ বৃদ্ধি পায়, যা পরিবেশ দূষণের জন্য দায়ী। তাই পরিবেশের পাশে থাকতে লিকুইডের পরিবর্তে বার সাবান ব্যবহার করুন।

কাগজের ব্যাগ

অনেক সময় আমরা খাবার প্যাকিং করার জন্য অ্যালুমিনিয়ামের ফয়েল ব্যবহার করি। এতে বেশ কিছুক্ষণ খাবার গরম থাকে ঠিকই, কিন্তু আখেরে ক্ষতির পরিমাণও কম হয়না। কেননা অ্যালুমিনিয়ামের এই ফয়েল মাটির সঙ্গে মিশতে বহু যুগ সময় নেয়। এতে করে পরিবেশও দূষিত হয়। তাই দূষণ রোধে এর পরিবর্তে কাগজের ব্যাগ কিংবা বাক্স ব্যবহার করাই বেশি ভালো।

পাট কিংবা কাপড়ের ব্যাগ

বেশিরভাগ সময়ই আমরা বিভিন্ন জিনিস আনা-নেওয়ার ক্ষেত্রে প্লাস্টিকের ব্যাগ ব্যবহার করি। এটা একেবারেই মাটির সঙ্গে মিশতে চায় না বলে দূষণের সৃষ্টি হয়। তাই দূষণ কমাতে এর পরিবর্তে পাট কিংবা কাপড়ের ব্যাগ ব্যবহার করুন।

ইঞ্জিন বন্ধ রাখুন

গাড়ি চালানোর সময় কিছু কিছু ক্ষেত্রে ইঞ্জিন বন্ধ রাখলে এনার্জি কম ক্ষয় হয়। এতে করে পেট্রল কিংবা ডিজেলও তুলনামূলক কম খরচ হয়। যেমন-ট্রাফিক সিগন্যালে দাঁড়িয়ে থাকার সময়ে কিংবা রাস্তায় কোন কারণে জ্যাম থাকলে গাড়ি অনেকক্ষণ ধরে দাড়িয়ে রাখলে অহেতুক গাড়ির ইঞ্জিন চালু না রেখে বন্ধ রাখুন। এতে এনার্জি কম ক্ষয়ের পাশাপাশি পরিবেশ দূষণও কমবে।

বোতল

আমরা প্রায়ই ক্যানড সফট ড্রিংস পান করে থাকি। এর ফলে পরোক্ষভাবে পরিবেশ দূষিত হয়। কেননা এই ক্যান তৈরিতে অনেক এনার্জি ক্ষয় হয়। পাশাপাশি এটি তৈরির সময় বেশ কিছু বিষাক্ত গ্যাসের উৎপত্তি হয় যা পরিবেশ দূষণের মাত্রা বৃদ্ধি করে। তাই দূষণ এড়াতে ক্যানের পরিবর্তে বোতল ব্যবহার করুন।  এতে করে দূষণের মাত্রা একদিকে যেমন কমবে, অন্যদিকে এই বোতল আবার ব্যবহারও করতে পারবেন।
 

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
  • নির্বাচিত

সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে