advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ঘুমের ঔষধ খাইয়ে স্বামীর পুরুষাঙ্গ কাটলেন স্ত্রী

ধামরাই প্রতিনিধি
১২ জানুয়ারি ২০১৯ ২৩:৪০ | আপডেট: ১৩ জানুয়ারি ২০১৯ ০১:০১
advertisement

ঢাকার ধামরাই উপজেলায় ঘুমের ঔষধ খাইয়ে পোশাক শ্রমিক স্বামীর পুরুষাঙ্গ কেটে দিয়েছেন স্ত্রী। বলিঘাতের শিকার সুমন হোসেন নামে ওই ব্যক্তিকে (৩২) সাভারের এনাম মেডিকেল কলেজ অ্যান্ড হাসাপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

গতকাল শনিবার রাতে ধামরাইর বালিথা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ সুমনের স্ত্রী মর্জিনা বেগমকে (২৭) আটক করেছে।

জানা গেছে, গত ৯ বছর আগে বিয়ে হয় সুমন-মর্জিনার। তাদের নুর হাসান নামের আট বছরের একটি ছেলে সন্তান রয়েছে। বিয়ের পর দুজনেই আলাদা দুটি পোষাক কারখানায় চাকরী নেন। কাজের সুবাদে মর্জিনার বিভিন্নজনের সঙ্গে পরিচিত হয়। এমন অবস্থায় তিনি রাত-দিন তাদের সঙ্গে মোবাইল ফোনে কথা বলতেন।

সুমনের এ বিষয়টি নিয়ে সন্দেহ হলে স্ত্রীকে কয়েকবার কথা বলা থেকে বারণ করেন তিনি। এ কারণে মর্জিনা ক্ষোভের বর্শবর্তী হয়ে তার স্বামীকে ভাতের সঙ্গে ঘুমের ঔষধ মেখে খেতে দেন। রাতে সুমন ঘুমিয়ে পড়লে মর্জিনা ধারাল চাকু দিয়ে তার পুরুষাঙ্গ কেটে পালিয়ে যেতে চেষ্টা করেন।

এ সময় সুমনের আর্তচিৎকার শুনে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে পালাতে ব্যর্থ হন মার্জিনা। পরে খবর দিয়ে তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেন এলাকাবাসী।

সুমনের আত্মীয় স্বজন এসে তাকে এনাম মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করান।

ধামরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দীপক চন্দ্র সাহা বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, সুমনকে হাসপাতালে ভর্তি করান হয়েছে। তার অবস্থা আশংকাজনক। তবে তার স্ত্রী মর্জিনাকে অটক করা হয়েছে। এ ব্যাপারে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

advertisement