advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

মুঠোফোনে ডেকে নিয়ে প্রেমিকাকে  ‘ধর্ষণ’, প্রেমিক গ্রেপ্তার

বাউফল (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
১৮ এপ্রিল ২০১৯ ২২:০৭ | আপডেট: ১৮ এপ্রিল ২০১৯ ২২:০৭
advertisement

পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায় এক কলেজছাত্রীকে ফোন করে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে তার প্রেমিকের বিরুদ্ধে। বিষয়টি গ্রাম্য সালিশের মাধ্যমে ফায়সালা করার চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে ওই ছাত্রীর বাবা থানায় অভিযোগ করেন। পরে গতকাল বুধবার রাতে প্রেমিক রাসেদুল ইসলাম জুয়েলকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

প্রেমিক রাসেদুল স্থানীয় ইদ্রিছ মোল্লা ডিগ্রি কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র। তার বাবার নাম সাহাদুল মাতব্বরে। ধর্ষণের শিকার ওই ছাত্রীর স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য পটুয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার একটি ডিগ্রি কলেজের প্রথম বর্ষের এক ছাত্রীর সঙ্গে একই কলেজের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রাশিদুল ইসলাম জুয়েলের দীর্ঘদিন ধরে প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিল। গত ১০ এপ্রিল জরুরী কথা আছে বলে রাশেদুল মুঠোফোনে তার প্রেমিকাকে তার ঘরে ডেকে নেন।

পরে সেখানে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রেমিকাকে ধর্ষণ করেন জুয়েল। বিষয়টি স্থানীয় লোকজন জেনে গেলে এ নিয়ে গ্রাম্য সালিশ হয়। সেখানে জুয়েল ওই ছাত্রীকে বিয়ে করতে অসম্মতি জানান। এরপর গতকাল বুধবার ওই ছাত্রীর বাবা বাউফল থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

বাউফল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খন্দকার মোস্তাফিজুর রহমান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ‘আজ বৃহষ্পতিবার গ্রেপ্তার রাশেদুলকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

advertisement