advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

পাঁচ জেলায় ধর্ষণ ও ধর্ষণচেষ্টার মামলায় গ্রেপ্তার ৯ জন

আমাদের সময় ডেস্ক
২১ এপ্রিল ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ২১ এপ্রিল ২০১৯ ০৯:৫৫

পাঁচ জেলায় ধর্ষণ ও ধর্ষণচেষ্টার মামলায় ৯ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এর মধ্যে রাজশাহী নগরীতে নিজ বাড়িতে এক কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন এক ব্যক্তি। স্ত্রীর সহায়তায় এলাকাবাসী তাকে আটক করে পুলিশে দেয়। সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়া ও মুন্সীগঞ্জে দুই প্রতিবন্ধী তরুণী এবং চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় গ্রেপ্তার করা হয় চার লম্পটকে। চাঁপাইনবাবগঞ্জে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টার ঘটনা ধামাচাপা দেওয়ার অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয় ৪ জনকে।

প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর-রাজশাহী : কিশোরীকে ধর্ষণচেষ্টার অভিযোগে মাহফুজুর রহমান নামে এক ব্যক্তিকে এলাকাবাসীর সহায়তায় আটক করে পুলিশে দিয়েছেন স্ত্রী। গত শুক্রবার রাতে নগরীর রাজপাড়া থানার লক্ষ্মীপুর ভাটাপাড়া এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়। মাহফুজুর পেশায় রিকশাচালক। রাজপাড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাফিজুর রহমান জানান, মাহফুজুর নিজ বাড়িতে এক কিশোরীকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। ঘটনা দেখে তার স্ত্রী স্থানীয় লোকজনকে জানান। টের পেয়ে মাহফুজ পালানোর চেষ্টা করেন। এ সময় স্ত্রীর সহযোগিতায় স্থানীয়রা তাকে আটক করে পিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে। নগরীর ৬ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর নূরুজ্জামান টুকু জানান, ওই কিশোরী দীর্ঘদিন ধরে মাহফুজের বাড়িতে থাকত। এর আগেও সে মেয়েটিকে ধর্ষণের চেষ্টা করে।

উল্লাপাড়া : সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে ধর্ষণের মামলায় গত শুক্রবার রাতে পুলিশ একজনকে গ্রেপ্তার করেছে। তার নাম খাইরুল ইসলাম। সে উল্লাপাড়া উপজেলার অলিপুর গ্রামের হেলাল শেখের ছেলে। গত ১৫ এপ্রিল বিকালে উপজেলার অলিপুর গ্রামের খাইরুল ইসলাম ও তার সহযোগী রফিকুল ইসলাম কৌশলে ডেকে নিয়ে গ্রামের একটি খালের পাশে ধর্ষণ করে ওই প্রতিবন্ধী তরুণীকে। এ ঘটনায় তার বাবা ১৯ এপ্রিল থানায় মামলা দায়ের করেন।

মুন্সীগঞ্জ : সদর উপজেলার রামপালের বল্লালবাড়িতে প্রেমের ফাঁদে ফেলে প্রতিবন্ধী এক তরুণীকে ধর্ষণের মামলায় আসামি ইমরান শেখ (১৮) ও তার ভগ্নিপতি বল্লালবাড়ি গ্রামের বাদশা মিয়ার ছেলে আল আমিনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ইমরান পশ্চিম রতনপুরের মালেক শেখের ছেলে। গত ১৪ এপ্রিল বল্লাল বাড়িতে ধর্ষণের ঘটনা ঘটে। গত শুক্রবার রাতে ধর্ষিতার মা সদর থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ ওই দুইজনকে গ্রেপ্তার করে। গতকাল তাদের আদালতে হাজির করা হয়।

ফরিদগঞ্জ : চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে পঞ্চম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী ধর্ষণের অভিযোগে পুলিশ গত শুক্রবার সোহেল হোসেন নামের এক লম্পটকে উপজেলার কালিরবাজার এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে। পুলিশ সাত দিনের রিমান্ড চেয়ে ওইদিনই তাকে আদালতে সোপর্দ করে। উপজেলার রূপসা উত্তর ইউনিয়নের রুস্তমপুর এলাকার ওই শিক্ষার্থীকে সোহেল গত বৃহস্পতিবার বিকালে ধর্ষণ করে।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ : সদর উপজেলার ইসলামপুরে এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা ও ঘটনা ধামাচাপা দেওয়ার মামলায় মূল আসামিসহ ৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়। গতকাল শনিবার ভোরে গোয়েন্দা পুলিশ তাদের গ্রেপ্তার করে। তারা হলেন-উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের তেররশিয়া গ্রামের আ. সালাম, একই এলাকার সালিশদার নাসির উদ্দিন, ইউপি সদস্য রেজাউল হক ও মো. তুফানী। জেলা গোয়েন্দা পুলিশ পরিদর্শক বাবুল উদ্দিন সরদার জানান, উপজেলার নয়রশিয়া গ্রামের একটি পাটক্ষেতে তৃতীয় শ্রেণির এক ছাত্রীকে গত ১৮ এপ্রিল সকাল সাড়ে ১০টায় ধর্ষণের চেষ্টা করেন আ. সালাম।