advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

চেলসি বিপাকে

ক্রীড়া ডেস্ক
২৪ এপ্রিল ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ২৪ এপ্রিল ২০১৯ ০৯:৩৪
advertisement

লিভারপুলের কাছে অ্যাওয়ে ম্যাচে হারের পর এবার ঘরের মাঠে বার্নলি এফসির কাছে পয়েন্ট খোয়াল চেলসি। স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে বার্নলির সঙ্গে ২-২ গোলে ড্র করে বেকায়দায় দ্য ব্লুজরা।

লিগে ৩৫টি ম্যাচ খেলা হয়ে গেছে তাদের। আপাতত এই ম্যাচ থেকে ১ পয়েন্ট ঘরে তুলে চার নম্বরে উঠে এসেছে চেলসি। তাদের মোট পয়েন্ট ৬৭। সুযোগ হারানোর রাতে স্ট্যামফোর্ড ব্রিজে ম্যাচশেষে দুয়ো দিয়েছেন সমর্থকরা। বিশেষ করে দ্বিতীয়ার্ধে চেলসির পারফরম্যান্স আর ম্যানেজার সারির সিদ্ধান্তগুলোও কাজে না আসায় সমর্থকদের অসোন্তোষ একেবারেই অযৌক্তিকও ছিল না। তবে এসবের আগে নিজেদের মাঠে শুরুটা ভালোই ছিল চেলসির।

প্রথম কয়েক মিনিটেই বার্নলির নাভিশ্বাস তুলে দিয়েছিলেন হ্যাজার্ড, হিগুয়াইনরা। বেশ কয়েকবার গোলের সুযোগ তৈরি করার পর ৬ মিনিটে এডেন হ্যাজার্ডের লব থেকে গঞ্জালো হিগুয়াইনের শট ক্লিয়ার হয় গোললাইন থেকে। কিন্তু এর দুই মিনিট পর স্রোতের বিপরীতে ম্যাচে এগিয়ে যায় উলটো বার্নলিই। কর্নার থেকে হেডে ডি-বক্সের মাথায় বল পেয়ে গিয়েছিলেন জেফ হেনড্রিক। তার দুর্দান্ত এক ভলি চমকে দেয় কেপাকে।

চমকে যায় আসলে গোটা স্ট্যামফোর্ড ব্রিজই। কিন্তু এর পর ১১৩ সেকেন্ডের ব্যবধানে দুই গোল করে আবার ঘরের মাঠে স্বস্তি ফিরিয়ে এনেছিল চেলসি। ১২ মিনিটে বাম দিক থেকে হ্যাজার্ডই তৈরি করে দিয়েছিলেন গোলটা। বার্নলির ম্যাথু লটনকে দুইবার বোকা বানিয়ে মাইনাস করেছিলেন হ্যাজার্ড। স্পটকিক নেওয়ার কাছাকাছি জায়গা থেকে বাম পায়ের শটে টপ কর্নারে বল জড়িয়ে চেলসিকে সমতায় ফেরান এনগোলো কান্তে। এর কিছুক্ষণ পর দুর্দান্ত আরও একটি গোল করে চেলসি। হিগুয়াইনই ওয়ান টু করে শুরু করেছিলেন ডি-বক্সের বাইরে থেকে।

জর্জিনিয়োর ফিরতি পাস দৃষ্টিনন্দন এক ব্যাকহিল করে সিক্স ইয়ার্ড বক্সের কোনাকুনি জায়গায় ফেলেছিলেন সিজার আজপিলিকুয়েতা। হিগুয়াইন সেখান থেকেই মেরেছেন বুলেটে গতির শট। ক্রসবার কাঁপিয়ে সেটা ঢুকে গেছে বার্নলির গোলে। চেলসির সেই স্বস্তিটা অবশ্য দশ মিনিটের বেশিও স্থায়ী হয়নি।

advertisement
Evall
advertisement