advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

এবার কৃষকের ধান কেটে দিল ছাত্রলীগ

২৩ মে ২০১৯ ০১:৪৫
আপডেট: ২৩ মে ২০১৯ ০৯:১৯
advertisement

ধানের দাম কম আর শ্রমিকের মূল্য বেশি হওয়ায় মাঠ থেকে পাকা ধান ঘরে তুলতে পারছেন না কৃষকরা। এ অবস্থায় কৃষকদের ধান কাটতে সহযোগিতা করার জন্য ছাত্রলীগের সব নেতাকর্মীকে নির্দেশ দেন সংগঠনটির কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।

একই উদ্দেশ্যে ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির কৃষি শিক্ষাবিষয়ক সম্পাদক এসএম মাকসুদুর রহমান মিঠুকে সমন্বয়ক করে তিন সদস্যের বিশেষ কমিটিও গঠন করা হয়েছে। এরই অংশ হিসেবে গতকাল বুধবার বিকালে গোলাম রাব্বানী নিজেই সাভারের ভাকুর্তায় ধান কাটার কাজে নেমে পড়েন। তিনি সংগঠনের নেতাকর্মীদের সঙ্গে নিয়ে একটি ক্ষেতের ধান কাটেন। মাত্র দুই ঘণ্টার মধ্যেই শুক্কুর আলী নামে এক কৃষকের ১০ কাঠা জমির ধান কেটেছেন বলে দাবি করেন গোলাম রাব্বানী।

ছাত্রলীগ সূত্র জানায়, ভাকুর্তা ইউনিয়নের কৃষক শুক্কুর আলী শ্রমিক সংকটের পাশাপাশি মজুরি বেশি হওয়ায় ধান কাটতে পারছিলেন না। মঙ্গলবার রাতে তিনি জানতে পারেন, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের অসহায় কৃষকদের পাশে দাঁড়াতে বলা হয়েছে। এই খবরে তিনি ফেসবুক থেকে ছাত্রলীগের কৃষিশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক এসএম মাকসুদুর রহমান মিঠুর নম্বর নিয়ে তার সঙ্গে যোগাযোগ করেন। পরে গতকাল দুপুরে সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী এ খবর পেয়ে নিজেই ভাকুর্তায় শুক্কুর আলীর ধানক্ষেতে হাজির হন। এ সময় তার সঙ্গে যোগ দেন সংগঠনের কেন্দ্রীয় কমিটি নেতা ও ঢাকা জেলার সভাপতিসহ ছাত্রলীগের বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মীরা।

গোলাম রাব্বানী বলেন, অসহায় কৃষকদের পাশে দাঁড়াতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছেন। আমরা ছাত্রলীগের কর্মীরা তার আদর্শের ‘ভ্যান গার্ড’ হিসেবে কৃষককে সর্বাত্মক সহযোগিতা করতে প্রস্তুত। এরই ধারাবাহিকতায় আমরা শুক্কুর আলী ভাইয়ের পাকা ধান কেটে দিচ্ছি।

এ সময় গোলাম রাব্বানী সারাদেশের ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন, তারা যেন নিজ নিজ এলাকার কৃষকদের পাকা ধান কেটে দেন এবং তাদের সর্বাত্মক সহযোগিতা করেন। পাশাপাশি ধান কাটার ছবি তুলে ফেসবুকে ছড়িয়ে দিয়ে অন্যদেরও এ কাজে উৎসাহিত করেন।

মাকসুদুর রহমান মিঠু বলেন, ইতোমধ্যে আমরা তৃণমূলের অনেক নেতাকর্মীর সাড়া পাচ্ছি। তারা কিছু কিছু এলাকায় কাজও শুরু করে দিয়েছে। প্রান্তিক কৃষকদের ধান কাটার মাধ্যমে তাদের সার্বিক সহযোগিতা করা হচ্ছে।