Paran Frooto
advertisement
Paran Frooto
advertisement
advertisement

বাংলাদেশের সামনে অগ্নিপরীক্ষা

মাইদুল আলম বাবু,ব্রিস্টল থেকে
১২ জুন ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ১২ জুন ২০১৯ ০৮:৫২
advertisement

বৃষ্টি এখন শুধু বাংলাদেশেরই না, এই বিশ্বকাপের মাথাব্যথার কারণও বটে। এখন পর্যন্ত গ্রুপপর্বে ১৬টি ম্যাচের সূচিতে ৩টিই বৃষ্টিতে প- হয়ে গেছে। আজ টনটনে পাকিস্তান ও অস্ট্রেলিয়ার ম্যাচটি রয়েছে। সেখানেও বৃষ্টি হতে পারে। আবহাওয়া রিপোর্টে বৃষ্টি রয়েছে। ১৭ জুন সেই টনটনে বাংলাদেশ পরের ম্যাচটি খেলবে। অবশ্য সে সময় যদি বৃষ্টি থাকে তো ভোগান্তির শেষ থাকবে না।

সুখবর হচ্ছে পরের খেলাটি আসতে দেরি রয়েছে। বাংলাদেশ-শ্রীলংকার ম্যাচটি প- হয়ে গিয়ে চাপে পড়েছে বিশ্বকাপ আয়োজকরা। এখন কেমন হবে এই টুর্নামেন্টের ভবিষ্যৎ; বাংলাদেশইবা কী করতে পারে, কী সম্ভাবনা রয়েছে সামনে... বৃষ্টি বাংলাদেশের পরের ম্যাচটি টনটনে রয়েছে। যেখানে ১৭ জুন খেলা। ব্রিস্টল থেকে টনটনের দূরত্ব ৪৯ মাইল দূরত্ব।

ফলে মেঘ সেখানেও রাজত্ব করেছে। আজ পাকিস্তানের ম্যাচেও করবে। ১৭ জুন আবহাওয়া দেখে বোঝা যাচ্ছে, সেখানে রোদ-বৃষ্টির খেলা হবে। বাংলাদেশের জন্য ভালো খবর একেবারেই নেই। প্রতিটি ম্যাচ জয়ের জন্য ২টি পয়েন্ট রয়েছে। পরিত্যক্ত হলে ১টি করে পয়েন্ট ভাগাভাগি। টনটনেও বাংলাদেশের জন্য সুখবর দিচ্ছে না আবহাওয়া। ব্রিস্টলে আর বিশ্বকাপের ম্যাচ নেই। এই মাঠ দেখেছে দুটি বৃষ্টিস্নাত ম্যাচ। পয়েন্ট টেবিল দশ দলের বিশ্বকাপ। সেরা ৪টি দল সেমিফাইনালে খেলবে।

বাংলাদেশের অবস্থান এখন ৭ নম্বরে। ৪টি ম্যাচ থেকে ৩ পয়েন্ট বড় অর্জন নয়। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে জয়ের পর নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডের কাছে হেরেছে বাংলাদেশ। নিউজিল্যান্ডের ম্যাচটি নিয়ে আশা ছিল বাংলাদেশের। সমান ৩ পয়েন্ট নিয়ে ষষ্ঠ স্থানে উইন্ডিজ। সমান ৪ পয়েন্ট নিয়ে ইংল্যান্ড দ্বিতীয়, ভারত তৃতীয়, অস্ট্রেলিয়া চতুর্থ ও শ্রীলংকা রয়েছে পঞ্চম স্থানে। রান রেটের কারণে এই ব্যবধান। ৩ ম্যাচের তিনটি জিতে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে রয়েছে নিউজিল্যান্ড। আকরাম খান যা বললেন... বাংলাদেশের সেমিফাইনালে যেতে ১০ পয়েন্ট পেতে হবে বলে জানান আকরাম খান। এখন ম্যাচ বাকি ৫টি। তবে এত সহজ নয়। প্রতিপক্ষ ৫টির মধ্যে ৪টিই সাবেক বিশ্বচ্যাম্পিয়ন। আফগানিস্তান ছাড়া সবাই চ্যালেঞ্জিং দল। আকরাম খান বলেছেন, আমি খুবই হতাশ। আমাদের ১০ পয়েন্ট পেতে হবে। এখন আমাদের পরিস্থিতি কঠিন হয়ে গেছে।

বৃষ্টির ওপর কারও হাত নেই। ওয়েস্ট ইন্ডিজ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান সম্প্রতি রেকর্ড অনুযায়ী বাংলাদেশ এখন চোখ রাখবে ওয়েস্ট ইন্ডিজ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তানের দিকে। অস্ট্রেলিয়া ও ভারত সবচেয়ে বেশি শক্তিশালী। তবে বাংলাদেশ যে ম্যাচ জিততে পারবে না, সেটা ঠিক নয়। বাংলাদেশ যে কোনো দলকেই হারানোর ক্ষমতা রাখে। তবে বিশ্বকাপের মঞ্চে যে কোনো দল জ্বলে উঠতে পারে। বাংলাদেশকে এখন কঠিন পরীক্ষা পাড়ি দিতে হবে। টুর্নামেন্টের কী পরিস্থিতি অস্ট্রেলিয়া আজ পাকিস্তানের মুখোমুখি হবে। ভারত সর্বশেষ ম্যাচে অস্ট্রেলিয়াকে হারিয়েছে। ভারত আত্মবিশ্বাসের তুঙ্গে রয়েছে। তারা দক্ষিণ আফ্রিকাকেও হারিয়েছিল।

তবে দুঃসংবাদ হচ্ছে শিখর ধাওয়ান ইনজুরিতে পড়েছেন। তিনি সামনের দুটি ম্যাচে খেলতে পারবেন না। এখন পর্যন্ত বৃষ্টি নাটকীয়তা উপহার না দিলে পয়েন্ট টেবিলের সেরা চারে নিউজিল্যান্ড, ইংল্যান্ড, ভারত ও অস্ট্রেলিয়া রয়েছে। এই চারটি দলের একটিও চ্যাম্পিয়ন হতে পারে। অবশ্য এই কথা বলার এখনো সময় আসেনি। অপেক্ষা করতে হবে সে জন্য। বৃষ্টিতেই সর্বনাশ বাংলাদেশের মাশরাফির চোখেমুখে চরম হতাশার ছাপ! খেলা পরিত্যক্ত হওয়ার পর প্রেজেন্টারের প্রশ্নের জবাবে বাংলাদেশের ক্যাপ্টেন বলেন, ‘আমরা আগের দুটি ম্যাচেও এতটা হতাশ হইনি; এই ম্যাচ খেলতে না পেরে যেমনটি হয়েছি। বৃষ্টির ওপর এখন কারও হাত নেই। কি বা করার আছে এখন। আমাদের এখন সামনের ম্যাচে নজর রাখতে হচ্ছে। শ্রীলংকার ম্যাচটি খেলার জন্য আমরা প্রস্তুত ছিলাম।’ ব্রিস্টলে সোমবার দুপুর থেকেই বৃষ্টি শুরু হয়।

এর পর নিয়মিত বিরতি দিয়ে নেমে এসেছে ধরণীতে। গতকাল সকালেও পরিস্থিতি বদলে যায়নি। পাহাড়ি অঞ্চলের বৃষ্টির রোমান্টিকতা মাশরাফির বুকে কষ্ট হয়ে বিঁধেছে। আম্পায়ার ইলিংওর্থ ও কেটলবরো দুবার গেছেন মাঠে। মাঠকর্মীরাও প্রচেষ্টা চালিয়েছেন। বৃষ্টি নাছোড় বান্দা। একটুও ছাড় দেয়নি। ফলে স্থানীয় সময় বেলা ১টা ৫৭ মিনিটে আম্পায়ার ম্যাচ পরিত্যক্ত ঘোষণা করেন। বিশ্বকাপের চতুর্থ ম্যাচে বাংলাদেশ প্রত্যাশিত জয়ের ম্যাচে ১ পয়েন্ট নিয়ে সন্তুষ্ট থাকল। অন্যদিকে শ্রীলংকা আরও একটি ম্যাচ বৃষ্টির জন্য খেলতে পারল না। বাংলাদেশের সামনে এখন কঠিন পরীক্ষা অপেক্ষা করছে। দক্ষিণ আফ্রিকার ম্যাচটিতে বাংলাদেশ অবিশ্বাস্য খেলেছে।

নিউজিল্যান্ড ও ইংল্যান্ডের ম্যাচটিতে হেরে বিশ্বকাপে চাপে পড়ে বাংলাদেশ। অঙ্ক বেশ কঠিন। ৯ ম্যাচের পাঁচটিতে জিততে হবে এটি সোজা কথা। সে ক্ষেত্রে সেমিফাইনালের দরজা খুলে যেতেও পারত। এখন অঙ্ক অনেক কঠিন মনে হচ্ছে। বাংলাদেশ এই পাঁচটি ম্যাচের মধ্যে নিউজিল্যান্ড ও শ্রীলংকাকে হারাতে ব্যর্থ হয়েছে। শ্রীলংকার ম্যাচটি তো হয়নি। আর নিউজিল্যান্ডের কাছে হারতে হয়েছে ২ উইকেটে। বাংলাদেশকে এখন মিরাকল করতে হবে। সামনের প্রতিপক্ষ ওয়েস্ট ইন্ডিজ, অস্ট্রেলিয়া, ভারত ও পাকিস্তান। আর এদের মধ্যে শুধু শক্তির বিচারে পিছিয়ে রয়েছে আফগানিস্তান। ১৭ জুন টনটনে বাংলাদেশের পরের ম্যাচটি ওয়েস্ট ইন্ডিজের সঙ্গে।

এই ম্যাচটির মাঝে বাংলাদেশ একটু সময় পাবে। এই ফাঁকে সাকিব ইনজুরি থেকে বের হয়ে আসতে পারবেন। আর অন্য খেলোয়াড়দের ছোটখাটো ইনজুরি থেকে বের হয়ে আসার সুযোগ রয়েছে। এই পয়েন্ট ভাগাভাগিতে বাংলাদেশ বিশ্বকাপের পয়েন্ট টেবিলে সপ্তম স্থানে উঠেছে। পয়েন্ট ৩। সেরা চারটি দল সেমিফাইনালে যাবে। খাতা-কলমে বাংলাদেশের সুযোগ বেশ রয়েছে। তবে বাস্তবতা হচ্ছে, বাংলাদেশকে মুখোমুখি হতে হবে কঠিন প্রতিপক্ষের। টুর্নামেন্টে এখন পর্যন্ত ১৬টি ম্যাচের তিনটি ভেসে গেছে বৃষ্টিতে। ফলে এ টুর্নামেন্টের অঙ্ক অনেক কঠিন পর্যায়ে যাবে সেটি অনুমেয়।

বাংলাদেশের জন্য তবু সুসংবাদ নেই। টনটনেও নিয়মিত বৃষ্টি হচ্ছে। সব মিলিয়ে বাংলাদেশের সেমিফাইনালে যাওয়ার যে আশা ছিল, সেটিই বড় রকমের ধাক্কা লেগেছে। এখন শুধুই প্রার্থনা বাংলাদেশের জন্য। গতকাল সকাল ১০টা ৩০ মিনিটে খেলা শুরু হওয়ার কথা ছিল। বৃষ্টি থাকায় আম্পায়ার প্রথমবার মাঠেই যান সাড়ে ১০টায়। এর পর নানা চেষ্টা-তদবির করে মাঠে বল গড়ানো সম্ভব হয়নি। টস ও বল গড়ানো ছাড়াই ম্যাচটি পরিত্যক্ত হয়।

advertisement