Paran Frooto
advertisement
advertisement

উইলিয়ামসনের সেঞ্চুরিতে স্বপ্নভঙ্গ দক্ষিণ আফ্রিকার

স্পোর্টস ডেস্ক
২০ জুন ২০১৯ ০১:২০ | আপডেট: ২০ জুন ২০১৯ ০৯:১৮
advertisement

ম্যাড়ম্যাড়ে খেলায় শেষ দিকে টানটান উত্তেজনা নিয়ে আসার কৃতিত্ব পুরোটাই পাবেন প্রোটিয়া বোলাররা।  মাত্র ২৪২ রানের টার্গেটের খেলাকে শেষ ওভার পর্যন্ত টেনে নিয়ে যান তারা।

ইনিংসের শেষ ওভারে নিউজিল্যান্ডের প্রয়োজন ছিল আট রান। ওভারের প্রথম বলেই ছয় মেরে উত্তেজনায় জল ঢেলে দেন ক্রিজে মাটি কামড়ে পড়ে থাকা কেন উইলিয়ামসন। দুর্দান্ত সেঞ্চুরি করে কিউই কাপ্তান দলকে নিয়ে যান পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে। এনে দিলেন চার উইকেটের জয়। 

শুরুতে বৃষ্টি বাগড়া দিলেও নিউজিল্যান্ড-দক্ষিণ আফ্রিকা ম্যাচ চলাকালীন আর বৃষ্টি হানা দেয়নি। এজবাস্টনে টস হেরে আগে ব্যাট করে দক্ষিণ আফ্রিকা তুলনামূলকভাবে ছোট লক্ষ্যই দিয়েছে। ৪৯ ওভার ব্যাটিং করে ছয় উইকেট হারিয়ে ২৪১ রান করে দক্ষিণ আফ্রিকা। বৃষ্টির কারণে ম্যাচ শুরু হতে বিলম্ব হওয়াতে খেলা দাঁড়ায় ৪৯ ওভারে।

রান উৎসবের এই বিশ্বকাপে ২৪২ লক্ষ্য অনেক ছোটই। কিন্তু এই রান তাড়া করতে গিয়ে হাঁসফাঁস অবস্থা হয় কিউইদের। কেন উইলিয়াসন ঢাল হয়ে না দাঁড়ালে হার দেখতে হতো। মাঝে গ্রান্ডহোম খেলেন দুর্দান্ত এক ইনিংস। কেন উইলিয়ামসন ১৩৮ বলে ১০৫ রান করে অপরাজিত ছিলেন। গ্রান্ডহোম ৬০ রান করে শেষ মুহূর্তে বাউন্ডারিতে ক্যাচ তুলে দিয়ে সাজঘরে ফেরেন।

পাঁচ ম্যাচে চার জয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের শীর্ষে উঠে এসেছে নিউজিল্যান্ড। একটি ম্যাচ বৃষ্টিতে পরিত্যক্ত হয়েছে। এদিকে ৬ ম্যাচে চার হারে দক্ষিণ আফ্রিকার পয়েন্ট তিন। এই ম্যাচ হারের কারণে বিশ্বকাপে টিকে থাকার স্বপ্ন মিইয়ে গেল দলটির।

টস হেরে ব্যাটিং করতে নেমে শুরু থেকেই ট্রেন্ট বোলটদের দেখেশুনে খেলছিলেন আমলা-ডি কক। কিন্তু পাঁচ রানের বেশি করতে পারেননি ডি কক। তবে আমলা অর্ধশতক (৫৫) করে সাজঘরে ফেরেন।  সর্বোচ্চ ৬৭ রান করে অপরাজিত ছিলেন ভ্যান ডার ডুসেন। ৩৮ ও ৩৬ রান করে আউট হন মার্করাম ও মিলার। অধিনায়ক ডু প্লেসির ব্যাট থেকে আসে মাত্র ২৩ রান।

কিউইদের হয়ে সর্বোচ্চ তিন উইকেট নেন লকি ফার্গুসন। একটি করে উইকেট নেন বোল্ট, গ্র্যান্ডহোম ও স্যান্টনার।

advertisement