Paran Frooto
advertisement
Paran Frooto
advertisement
advertisement

রক্ত ঝরল অস্ট্রেলিয়া-ইংল্যান্ড সেমিফাইনালে

স্পোর্টস ডেস্ক
১১ জুলাই ২০১৯ ২১:১৭ | আপডেট: ১২ জুলাই ২০১৯ ০১:৪৬
advertisement

চলতি বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি স্বাগতিক ইংল্যান্ড ও চ্যাম্পিয়ন অস্ট্রেলিয়া। ইংল্যান্ডের বার্মিংহামে টস জিতে ব্যাটিং করতে নেমে শুরুতেই অস্ট্রেলিয়া তিন উইকেট হারিয়ে বসে। সেই ধাক্কা অভিজ্ঞ স্মিথের ব্যাটে সামলে উঠলেও অজিদের ইনিংস থেমে যায় ২৩৩ রানে।

এই ম্যাচে ব্যাটিংয়ের সময় জোফরা আর্চারের একটি বল আঘাত হানে অজি উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান অ্যালেক্স কারের চিবুকে। সঙ্গে সঙ্গে রক্ত ঝরতে থাকে। ম্যাচের সাত ওভার ছয় বলের সময় এ ঘটনা ঘটে। রক্ত ঝরলেও মাঠ ছেড়ে যাননি কারে। ব্যান্ডেজ নিয়ে খেলে দলকে বাঁচান বিপদ থেকে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ (৪৬) আসে তার ব্যাট থেকেই।

আজ বাংলাদেশ সময় বিকেল সাড়ে ৩টায় দুই দলের মধ্যে ফাইনালের লড়াই শুরু হয়। আর এতে শুরুতেই দুই অজি ওপেনারকে ফিরিয়ে এগিয়ে যায় স্বাগতিকরা। ফিঞ্চকে রানের খাতা খোলার আগেই সাজঘরে পাঠান আর্চার। নিজের প্রথম বলেই এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলে ফিঞ্চকে ফেরান ক্যারিবীয় বংশোদ্ভূত এই বোলার।

ফিঞ্চের পথ অনুসরণ করে সাজঘরের পথ ধরেন ডেভিড ওয়ার্নারও। তার ব্যাট থেকে আসে মাত্র ৯ রান। বাঁহাতি এই ভয়ংকর ব্যাটসম্যানকে ফেরান ক্রিস ওকস। এই দুইজন দ্রুত ফিরে গেলে দলের হাল ধরার চেষ্টা করছিলেন স্টিভেন স্মিথ ও পিটার হ্যান্ডসকম্ভ।  কিন্তু বিপদের মুহূর্তে হ্যান্ডসকম্ভ (৪) আউট হয়ে দলকে আরও বিপদে ফেলেন। তবে সিম্থ লড়াই করেন শেষ পর্যন্ত।

৮৫ করে রানআউট হয়ে যখন যাচ্ছিলেন তখন ৪৮ তম ওভারের খেলা চলে। অ্যালেক্স কারে ৪৬ রান করে তাকে সঙ্গ দিয়েছিলেন। স্মিথ-কারে জুটিতেই মূলত সম্মানজনক রান গড়তে পারে অজিরা। এ ছাড়া গ্ল্যান ম্যাক্সওয়েল ২২ ও মিচেল স্টার্ক ২৯ রান করেন।

সর্বোচ্চ তিনটি করে উইকেট নিয়েছেন ক্রিস ওকেস ও আদিল রশিদ। জোফরা আর্চার দুটি ও মার্ক উড নেন একটি উইকেট।

রিজার্ভ ডে’তে গড়ানো প্রথম সেমিফাইনালে ভারতকে হারিয়ে ফাইনালে পা রাখে নিউজিল্যান্ড। আজ ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার মধ্যে জয়ী দল আগামী ১৪ তারিখ ফাইনাল খেলবে কিউইদের বিপক্ষে।