advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

নেশা করতে নিষেধ করায় স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা

নওগাঁ প্রতিনিধি
২৩ জুলাই ২০১৯ ১৫:১৭ | আপডেট: ২৩ জুলাই ২০১৯ ১৫:১৭
advertisement

নওগাঁর ধামইরহাট উপজেলায় নেশা করতে নিষেধ করায় নেশাগ্রস্ত স্বামী হাঁসুয়া দিয়ে তার স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিনকে (৩২) খুন করেছেন। গত সোমবার রাত ৯টার দিকে উপজেলার রামরামপুর তেলিপাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

এ ঘটনায় মঙ্গলবার সকালে নিহতের ছোট ভাই বুলবুল হোসেন বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। তবে ঘটনার পর থেকেই নিহতের স্বামী নুর মোহাম্মদ পলাতক রয়েছেন।

অভিযুক্ত নুর ধামইরহাট উপজেলার বাসিন্দা। পাঁচ বছর আগে রাজশাহী কাঁটাখালী এলাকার সাবিনা ইয়াসমিনকে দ্বিতীয় বিয়ে করেন তিনি।

জানা গেছে, ঘটনার দিন নেশাগ্রস্ত নুর মোহম্মদ বাড়িতে ফিরে স্ত্রীকে দেখতে না পেয়ে নাম ধরে চিৎকার করতে থাকে। এ সময় সাবিনা তার ননদ মলিদা বেগমের বাড়িতে ছিল। চিৎকার শুনে সে বাড়িতে এলে নুর মোহম্মদ জিজ্ঞাসা করে, ভাতের সঙ্গে কী তরকারি রান্না করা হয়েছে। এ নিয়ে দুজনের মধ্যে কথাকাটি হয়। এ সময় সাবিনা তার স্বামীকে নেশা করতে নিষেধ করে।

একপর্যায়ে নুর মোহাম্মদ ধারালো হাঁসুয়া দিয়ে সাবিনার পিঠে আঘাত করে। এতে সাবিনার প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়। পরে পাশের বাড়ির লোকজন জানতে পেরে সাবিনাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ধামইরহাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাকিরুল ইসলাম বলেন, ‘নেশা করতে নিষেধ করায় স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। রাতেই নিহতের লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসা হয়। গতকাল মঙ্গলবার সকালে নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য নওগাঁ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ’

এ ঘটনায় মঙ্গলবার সকালে নিহতের ছোট ভাই বুলবুল হোসেন বাদী হয়ে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন। আসামিকে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

advertisement