advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

রোমে ভুয়া কাগজপত্র দিয়ে রেসিডেন্ট করতে গিয়ে নয় বাংলাদেশিসহ ১৩ গ্রেপ্তার

ইসমাইল হোসেন স্বপন,ইতালি প্রতিনিধি
৩ আগস্ট ২০১৯ ২২:১৬ | আপডেট: ৩ আগস্ট ২০১৯ ২২:১৬
advertisement

ইতালির রাজধানী রোমের ৫ নম্বর পৌরসভায় ভুয়া কাগজপত্র দেখিয়ে অর্থের বিনিময়ে রেসিডেন্ট কার্ড করতে গিয়ে তিন ইতালীয়সহ ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের মধ্যে চারজনকে জেলে দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া ছয় জনকে গৃহবন্দী করা হয়েছে এবং তিন জনকে প্রতিদিন থানায় গিয়ে স্বাক্ষর দেওয়ার সাজা দেওয়া হয়েছে।

ইতালির প্রভাবশালী সংবাদপত্র লা-রিপাবলিকা জানিয়েছে, গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে নয়জন বাংলাদেশি রয়েছে। তারা দীর্ঘদিন ধরে রোম সিটি করপোরেশনের বিভিন্ন কমুনে ভুয়া কাগজপত্র দেখিয়ে রেসিডেন্ট কার্ড করে আসছিল। বাংলাদেশি এ সব দালালদের সঙ্গে জড়িত রয়েছে তিনজন ইতালিয়ান কর্মকর্তা- যারা বিভিন্ন কমুনে আনা গ্রাফির কাজে নিয়োজিত ছিল। পত্রিকাটি জানিয়েছে যে সব ভুয়া কাগজপত্র দিয়ে ইতালিতে বসবাসের জন্য স্টে পারমিট অথবা সৌজন্য করা হয়েছে তাও ভুয়া বলে গণ্য করা হবে। সংবাদপত্রটি বাংলাদেশি যাদের নাম প্রকাশ করেছে তারা হলেন দিদার ও আনোয়ার হোসাইন।

এ বিষয়ে যোগাযোগ করা হলে ইতালির প্রবীণ রাজনীতিবিদ মুক্তিযোদ্ধা মাহাতাব হোসেন বলেন, ‘কাগজপত্রের সমস্যা থাকলে তা বৈধ উপায়ে সমাধান করা যায়। দালালদের খপ্পরে পড়ে এ সকল বাংলাদেশির কাগজপত্র ভুয়া প্রমাণিত হলে তাদেরকে দেশে ফিরে যেতে হতে পারে।’

তিনি সকলকে সতর্ক করে দিয়ে জানান, কেউ যাতে দালালদের খপ্পরে পড়ে ভুয়া কাগজপত্র দিয়ে সৌজন্য নবায়ন না করেন।

রোমের কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব হাজী মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন বলেন, ‘ইতালিতে নতুন আসা প্রবাসীদের আরও সচেতন হতে হবে। তারা যাতে কোনোভাবে দালালদের শরণাপন্ন না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।’

দীর্ঘদিন ধরে রোমে একটি দালালচক্র কাজ করছে বলে তিনি অভিমত প্রকাশ করে বলেন, ‘এসব দালাল থেকে প্রবাসীদের দূরে থাকা উচিত।’

advertisement