advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে জিম্বাবুয়ের পরিবর্তে ‘নতুন’ দল

স্পোর্টস ডেস্ক
৭ আগস্ট ২০১৯ ১৪:২৮ | আপডেট: ৭ আগস্ট ২০১৯ ১৪:২৯
advertisement
advertisement

রাজনৈতিক হস্তক্ষেপের কারণে জিম্বাবুয়ের ক্রিকেট দলকে আন্তর্জাতিক সব ধরনের ক্রিকেট থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। বিশ্বকাপ শেষে লন্ডনে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট সংস্থার (আইসিসি) এক বার্ষিক সভায় এই সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

এ কারণে আইসিসির কোনো টুর্নামেন্টসহ আইসিসি অনুমোদিত কোনো সিরিজও খেলতে পারবে না দলটি। আগামী বছর অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠেয় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বাছাইপর্বে অংশগ্রহণ করতে পারবে না জিম্বাবুয়ে। তাদের পরিবর্তে নাইজেরিয়া বাছাইপর্ব খেলবে।

আফ্রিকা থেকে তৃতীয় হয়ে বাছাইপর্বে এসেছে নাইজেরিয়া। এই মহাদেশ থেকে খেলছে আরও দুটি দল-কেনিয়া এবং নামিবিয়া। অক্টোবরে সংযুক্ত আরব আমিরাতে অনুষ্ঠিত হবে বাছাইপর্বের ম্যাচগুলো।

আইসিসি তাদের অফিসিয়াল ওযেবসাইটে জানিয়েছে, স্বাধীন ও গণতান্ত্রিক নির্বাচনের জন্য একটি প্রক্রিয়া প্রদানে ব্যর্থ হয়েছে জিম্বাবুয়ে। এমনকি তা নিশ্চিত করার জন্য সেখানে সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ নেই।

শুধু বহিষ্কারই নয়, বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে আর্থিক সহযোগিতাও। এমনকি আইসিসির কোনো ইভেন্টে অংশগ্রহণও করতে পারবে না দলটি। ফলে অক্টোবরে পুরুষদের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের কোয়ালিফায়ার নিয়েও বিপদে পড়েছে জিম্বাবুয়ে।

জিম্বাবুয়েকে বহিষ্কারের সিদ্ধান্তের পর আইসিসির চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর বলেছিলেন, ‘আমরা জিম্বাবুয়ের সদস্য পদ বাতিল করার সিদ্ধান্তটি হালকাভাবে নিচ্ছি না। আমরা চাই আমাদের খেলাধুলাকে রাজনৈতিক হস্তক্ষেপ মুক্ত রাখতে।’

advertisement