advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

দাম না থাকায় পুঁতে ফেলা হলো ৯০০ চামড়া

জগন্নাথপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি
১৩ আগস্ট ২০১৯ ২০:৪০ | আপডেট: ১৪ আগস্ট ২০১৯ ০৯:৩৫
advertisement

চাহিদা অনুযায়ী দাম না পাওয়ায় সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলায় ৯০০ কোরবানির পশুর চামড়া পুঁতে ফেলা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বিকেল ৩টায় উপজেলার সৈয়দপুর-শাহারপাড়া ইউনিয়নের সৈয়দপুর হোসাইনিয়া হাফিজিয়া আরাবিয়া দারুল হাদিস মাদ্রাসা প্রাঙ্গণে এসব চামড়া পুঁতে দেওয়া হয়।

মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ জানায়, কোরবানির পশুর চামড়া ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রাম থেকে মাদ্রাসার পক্ষ থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে। অনেকে ব্যক্তিই মাদ্রাসার উন্নয়ন তহবিলে চামড়াগুলো দান করেন। কিন্তু সারাদিন অপেক্ষা করেও চাহিদা অনুযায়ী দাম না পাওয়ায় চামড়াগুলো বিক্রি করতে পারেননি মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ। প্রতিবাদে আজ বিকেল ৩টার দিকে মাদ্রাসার নিকটস্থ এলাকায় মাটিতে পুঁতে দেওয়া হয় চামড়াগুলো।

মাদ্রাসার মুহতামিম হাফেজ মাওলানা সৈয়দ ফখরুল ইসলাম বলেন, ‘আমাদের মাদ্রাসার পক্ষ থেকে বাড়ি বাড়ি গিয়ে পশুর ৯০০ চামড়া সংগ্রহ করা হয়। এর মধ্যে গরুর চামড়া রয়েছে ৮০০ ও ছাগলের ১০০ পিস। কিন্তু চাহিদা অনুযায়ী দাম না পাওয়ায় বাধ্য হয়ে মাটিতে পুঁতে দেওয়া হয়েছে চামড়াগুলো।’

চামড়াগুলো সংগ্রহ এবং চামড়ায় লবণ ব্যবহারে ৫০ হাজার টাকা ব্যয় হয়েছে বলেও জানান মাওলানা সৈয়দ ফখরুল ইসলাম।

শুধু জগন্নাথপুরের এই মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষই নয়, বিভিন্ন এলাকার কোরবানিদাতারা চাহিদা অনুযায়ী চামড়া বিক্রি করতে না পেরে অধিকাংশই মাটিতে পুঁতে রেখেছেন বলে জানা গেছে। 

advertisement