advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বিএসইসির চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুর্নীতি অনুসন্ধানে দুদক

নিজস্ব প্রতিবেদক
২২ আগস্ট ২০১৯ ১৫:১৩ | আপডেট: ২২ আগস্ট ২০১৯ ১৫:১৫
বিএসইসি’র চেয়ারম্যান এম খায়রুল হোসেন
advertisement

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (বিএসইসি) চেয়ারম্যান এম খায়রুল হোসেনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ খতিয়ে দেখতে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) সহকারী পরিচালক মামুনুর রশীদ চৌধুরীকে দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

দুর্নীতির বিষয়টি অনুসন্ধানের জন্য গত ৭ আগস্ট দুদকের এই কর্মকর্তাকে একটি চিঠি দেন কমিশনের পরিচালক (মানি লন্ডারিং) ও বিকল্প পরিচালক (গোয়েন্দা ইউনিট) গোলাম শাহরিয়ার চৌধুরী।

‘গোপনীয়’ ওই চিঠির বিষয়ের জায়গায় বলা হয়েছে, ‘ড. এম খাইরুল হোসেন, চেয়ারম্যান বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন এর বিরুদ্ধে বিভিন্ন গোষ্ঠীর যোগসাজশে দুর্বল কোম্পানির শেয়ার (ইনিশিয়াল পাবলিক অফার-আইপিও) অনুমোদন করিয়ে শেয়ার বাজারে বিক্রি করে অর্থ আত্মসাৎ ও পাচার করার অভিযোগ।’

চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘উপযুক্ত বিষয়ে সূত্রস্থ নথিতে রক্ষিত অভিযোগসমূহের বিষয়ে অতীব গোপনে তথ্য সংগ্রহপূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের নিমিত্ত আপনাকে (মামুনুর রশীদ চৌধুরী) অনুসন্ধান কর্মকর্তা নিয়োগ করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে। উক্ত সিদ্ধান্তের আলোকে নির্ধারিত সময়সীমার মধ্যে অতিদ্রুত গোপনীয়ভাবে অনুসন্ধানকার্য সম্পন্ন করে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য নির্দেশক্রমে অনুরোধ করা হলো।’

তবে পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থার প্রধানের বিরুদ্ধে ঠিক কী কী অভিযোগ রয়েছে, সে বিষয়ে কথা বলতে চাইছেন না দুদকের কেউ। 

অনুসন্ধানের দায়িত্ব পাওয়া কর্মকর্তা মামুনুর রশীদ চৌধুরী এ বিষয়ে কোনো কথা বলতে রাজি হননি। এ ছাড়া দুদকের উপপরিচালক (জনসংযোগ) প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য বলেন, ‘এ বিষয়ে কিছু জানা নাই।’

এ বিষয়ে দুদক চেয়ারম্যান ইকবাল মাহমুদকে প্রশ্ন করা হয়েছিল। তিনি বলেন, ‘অনুসন্ধানের বিষয়তো আমি দেখি না, অন্যরা দেখে। আমি কিছু জানি না।’

চলতি বছরের শুরু থেকে টানা দরপতনের মধ্যে পুঁজিবাজারে নতুন কোম্পানির তালিকাভুক্তির বিষয়টি আলোচনায় রয়েছে। দুর্বল কোম্পানিকে তালিকাভুক্তি দেওয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ তোলে বাজারসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন পক্ষ।

তাদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে গত ৩০ এপ্রিল নতুন আইপিও আবেদন বন্ধ রাখার আদেশ দেয় বিএসইসি। পুঁজিবাজারের ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারীদের সম্প্রতি বিএসইসি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ করতেও দেখা গেছে।

advertisement