advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

পুলিশের হাতে ‘ধরা’ খেলেন প্রিয়াঙ্কা ও ফারহান

বিনোদন ডেস্ক
১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০৯:৫৪ | আপডেট: ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০৯:৫৫
‘দ্য স্কাই ইজ পিঙ্ক’ ছবির একটি দৃশ্যে প্রিয়াঙ্কা ও ফারহান
advertisement

ভারতের মহারাষ্ট্র পুলিশের নজরে পড়লেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও ফারহান আখতার। বলিউডের এ অভিনেত্রী ও অভিনেতা তাদের পরবর্তী ছবি ‘দ্য স্কাই ইজ পিঙ্ক’ এর সুবাদে পুলিশের নজরে পড়েন। আর প্রিয়াঙ্কা চোপড়া স্বীকারও করে নিয়েছেন পুলিশের হাতে ধরা খাওয়ার বিষয়টি।

গত মঙ্গলবার ‘দ্য স্কাই ইজ পিঙ্ক’ছবির ট্রেইলার প্রকাশিত হয়েছে। যেখানে দেখা যায়, ফারহান আখতার ও প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার কন্যা আয়েশা দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত। ট্রেইলারে ফারহানের কণ্ঠে সংলাপ শোনা যায়, ‘একবার আয়েশা ঠিক হো জায়ে, ফির সাত মে ব্যাঙ্ক লুটেঙ্গে’- আর এ সংলাপটিই নজরে পড়ে মহারাষ্ট্র পুলিশের।

মহারাষ্ট্র পুলিশ এক টুইট বার্তায় ছবিটির কলাকুশলীদের ব্যাংক ডাকাতির শাস্তির কথা মনে করিয়ে দেন। টুইট বার্তায় তারা লিখে, ‘ভারতীর দণ্ডবিধির ৩৯৩ ধারা অনুযায়ী সাত বছরের জেল।’

‘দ্য স্কাই ইজ পিঙ্ক’ ছবি নিয়ে মহারাষ্ট্র পুলিশের টুইট

এ টুইটের রিটুইট করেন সাবেক বিশ্বসুন্দরী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। তিনি লিখেন, ‘এক্কেবারে হাতেনাতে ধরা পড়ে গেলাম, প্ল্যান বি সক্রিয় করার সময় এসেছে ফারহান।’

প্রিয়াঙ্কার মতো প্রতিক্রিয়া দেখাতে দেরি করেননি ফারহান আখতারও। তিনি লিখেন, ‘ক্যামেরার সামনে আর কখনও এমন পরিকল্পনা করবো না।’

যদিও এই পুরো ঘটনাটি একেবারেই মজার ছলে ঘটেছে। মহারাষ্ট্র পুলিশের পক্ষ থেকে এটি মজার পোস্টই ছিল। আর তাতে মেতে ওঠেন এ দুই তারকা।

সোনালি বোস পরিচালিত এ সিনেমায় আরও অভিনয় করেছেন ‘দঙ্গল কন্যা’ হিসেবে খ্যাত জায়রা ওয়াসিম ও রোহিত শরফ।

advertisement