advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ঘরের মাঠে সাকিবদের লজ্জা দিল আফগানিস্তান

ক্রীড়া প্রতিবেদক
১৫ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ২২:১০ | আপডেট: ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০১:৪০
বাংলাদেশকে ২৫ রানে হারিয়েছে আফগানিস্থান। পুরোনো ছবি
advertisement

বোলিং দেখে মনে হয়নি হেরে যাবে বাংলাদেশ। কিন্তু পরে আফগান ব্যাটসম্যান নবী যেভাবে ব্যাটিং করলেন, সেখানেই মূলত ম্যাচ হেরে যায় টাইগাররা। সাইফ-সাকিবের বোলিং তোপে একে একে উইকেট হারালেও শেষে দিকে দুর্দান্ত ব্যাটিং করে ১৬৪ রান করে আফগানিস্তান। আসগরদের এই কঠিন চ্যালেঞ্জ পার হতে পারেনি বাংলাদেশ।

জবাবে আফগানদের মতোই শুরু করে বাংলাদেশ। প্রথম ওভারে লিটনের উইকেট হারিয়ে শুরু হয় টাইগারদের যাত্রা। ৪০ রান না করতেই সাকিবরা হারিয়ে ফেলেন চার উইকেট। রশিদ-মুজবিদের ঘূর্নির কাছে অসহায় আত্মসমর্পণ করে ২৫ রানের ব্যবধানে হেরে মাঠ ছাড়ে বাংলাদেশ। এই ম্যাচে জয় নিয়ে টানা ১২টি ম্যাচ জেতার রেকর্ডও করে রশিদের দল। 

মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে আজ রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় বাংলাদেশ বনাম আফগানিস্তানের খেলাটি শুরু হয়। জিম্বাবুয়ের কাছে হারতে হারতে জিতে গেলেও আফগানদের কাছে পার পাননি রিয়াদ-মুশফিকরা। টস জিতে আগে ব্যাটিং করে মোহাম্মদ নবীর ৮৪ রানে ভর করে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছিল আফগানরা। সাইফের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়েও থামাতে পারেনি সফরকারীদের। চার উইকেট নিয়েছিলেন সাইফউদ্দিন।

৫ রান করে আউট হয়ে সাজঘরের পথ ধরেন মুশফিক। শুন্য রানে আউট হন সৌম্য। সাকিবও স্থায়ী হতে পারেননি। ১৫ রান করে আউট হন বাংলাদেশের অধিনায়ক। মাহমুদউল্লাহ-সাব্বির ক্রিজে থেকে থিতু হতে চেয়েছিলেন। কিন্তু এই দুজনেও বাংলাদেশকে বাঁচাতে পারেননি। সর্বোচ্চ ৪৪ রান আসে মাহমুদউল্লাহর ব্যাট থেকে। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৪ আসে সাব্বিরের ব্যাট থেকে।

গত ম্যাচে দুর্দান্ত খেলা আফিফ এ ম্যাচে করেন ১৬ রান। লিটন, মুশফিক, সৌম্য ও সাইফ আউট হন দুই অঙ্কের মুখ দেখার আগেই। এক বল বাকি থাকতেই ১৩৯ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশ। আফগানদের হয়ে সর্বোচ্চ চার উইকেট নেন মুজিউর রহমান। দুটি করে উইকেট নেন গুলবাদিন ও রশিদ খান।

advertisement