advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

রাবির খাবারে বড়শি-কেঁচো, হল ভাঙচুর

রাবি প্রতিনিধি
২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ২৩:২৬ | আপডেট: ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ২৩:২৬
advertisement

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) নবাব আব্দুল লতিফ হলের ডাইনিংয়ের খাবারে মাছ ধরার বড়শি ও কেঁচো পাওয়ার অভিযোগে আন্দোলন করেছে হলের আবাসিক শিক্ষার্থীরা। প্রধান গেট বন্ধ করে হল অভ্যন্তরে চেয়ার, সিসিটিভি ক্যামেরা ভাঙচুর করেছে তারা।

আজ শুক্রবার দুপুর দুইটা থেকে বিকেল পর্যন্ত এ ঘটনা ঘটে। এ সময় হল প্রশাসনের কাছে হলের বিভিন্ন সমস্যা নিরসনের দাবি জানান বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা।

ছাত্রদের অভিযোগ, হল প্রাধ্যক্ষ তাদের কোনো কল্যাণেই আসেন না। এ ঘটনায় তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি করা হয়েছে।

হল প্রাধ্যক্ষ ড. একরাম হোসেন শিক্ষার্থীদের আন্দোলন থামাতে চেষ্টা করলেও তারা থামেনি দাবি তার। পরে বিকেল সাড়ে তিনটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক ড. লুৎফর রহমান উপস্থিত হয়ে হল প্রাধ্যক্ষসহ আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেন।

জানতে চাইলে প্রক্টর অধ্যাপক ড. লুৎফর রহমান বলেন, শিক্ষার্থীদের অভিযোগ আমলে নিয়ে তিন সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে। এতে হলের আবাসিক শিক্ষক সাইফুর রহমানকে আহ্বায়ক করা হয়েছে। অন্য দুই আবাসিক শিক্ষক ড. আব্দুল হালিম, ড. ছালেকুজ্জামান খাঁন সদস্য হিসেবে রয়েছেন।

 

advertisement