advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

সৌদিতে বাড়ছে বাংলাদেশিদের মৃত্যুর সংখ্যা

সৌদি আরব প্রতিনিধি
২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯ ০০:১১
advertisement

সৌদি আরবের বিভিন্ন এলাকায় কর্মরত রয়েছেন প্রায় ২০ লাখেরও বেশি বাংলাদেশি শ্রমিক। সম্প্রতি দেশটিতে নতুন কয়েকটি আইন প্রণয়নের কারণে দেশে ফিরতে হচ্ছে শত শত প্রবাসী শ্রমিককে, যাদের মধ্যে বাংলাদেশিরাও রয়েছেন। জীবন-জীবিকার এ অনিশ্চয়তার মধ্যে মানসিক দুর্দশাগ্রস্ত শ্রমিকরা স্ট্রোক, হৃদরোগসহ বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যাচ্ছেন। সর্বশেষ গতকাল সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে আলিম উদ্দিন পাটোয়ারী নামে এক বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে সৌদি আরব নাগরিকদের কর্মসংস্থান সৃষ্টির লক্ষ্যে ২০১৭ সালে সৌদি সরকার সৌদিকরণ নীতিমালা ঘোষণা করে। এ নীতিমালার আংশিক বাস্তবায়ন হওয়ায় গত ১৫ মাসে বাংলাদেশিসহ বিভিন্ন দেশের প্রায় ৭ লাখ ২০০ প্রবাসী দেশটি ত্যাগ করতে বাধ্য হয়েছেন।

সৌদি সরকারের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, ২০১৭ সালে ৪ লাখ ৬৬ হাজার প্রবাসী দেশটি ত্যাগ করতে বাধ্য হয়েছেন। এ ছাড়া গত তিন মাসে আরও ২ লাখ ৩৪ হাজার ২০০ শ্রমিক নিজ দেশে ফিরে গেছেন। তবে এদের মধ্যে কতজন বাংলাদেশি প্রবাসী দেশে ফিরেছেন, তার কোনো সঠিক তথ্য জানা যায়নি।

ইতোমধ্যেই দেশটিতে বেশ কয়েকটি হাউজিং কোম্পানি, মোবাইল ও বোরকা দোকানসহ আরও কয়েকটি সেক্টর বন্ধ হয়ে যাওয়ায় বেকার হয়ে পড়েছেন দেশটিতে কর্মরত বাংলাদেশিসহ বিভিন্ন দেশের হাজার হাজার শ্রমিক। নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্রের মার্কেটগুলো হয়ে পড়েছে ক্রেতাশূন্য।

তার ওপর একের পর এক সড়ক দুর্ঘটনা, অগ্নিদগ্ধ, হত্যাসহ বিভিন্ন কারণে প্রায়ই প্রাণহানি ঘটছে বাংলাদেশিদের। ২০১৪ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত সৌদি আরব থেকে ৪ হাজার ৩০৩ প্রবাসীর মরদেহ বাংলাদেশে পাঠানো হয়েছে।

advertisement