advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

প্রেমিকার বাবাকে কিডনি দিয়ে প্রাণ বাঁচালেন যুবক

অনলাইন ডেস্ক
৬ নভেম্বর ২০১৯ ০৮:৪৭ | আপডেট: ৬ নভেম্বর ২০১৯ ১৩:৪৭
অ্যাশলে টারকোট ও তার বাবা পলের সঙ্গে প্রেমিক অ্যান্ড্রু মেজাক। ছবি : সংগৃহীত
advertisement

মেয়ের প্রেমিকের কারণে জীবন ফিরে পেয়েছেন পল টারকোট নামে এক ব্যক্তি। দীর্ঘদিন ধরে কিডনির সমস্যায় ভুগছিলেন তিনি। কিন্তু বিষয়টি জানতে পেরে তার মেয়ের প্রেমিক অ্যান্ড্রু মেজাক (২৩) কিডনি দান করার সিদ্বান্ত নেন। গত ১ অক্টোবর অস্ত্রোপচারের পর এখন তারা দুজনই সুস্থ রয়েছেন।

ভারতের আনন্দবাজার পত্রিকা জানিয়েছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের রোচেস্টারের বাসিন্দা অ্যান্ড্রু মেজাক। একটি ডেটিং অ্যাপের মাধ্যমে কয়েক বছর আগে পরিচয় হয় অ্যাশলে টারকোটের সঙ্গে। দুজনেই দুজনকে পছন্দ করেন। কিন্তু বেশ কিছু দিন অ্যাশলে একটি পারিবারিক তথ্য অ্যান্ড্রুর কাছে গোপন করে রেখেছিলেন। অ্যাশলের বাবা দীর্ঘদিন ধরে কিডনির জটিল সমস্যায় ভুগছিলেন। কিডনি প্রতিস্থাপন ছাড়া বাঁচা অসম্ভব বলে জানিয়ে দিয়েছিলেন চিকিৎসকরা।

অনেক পরে বিষয়টি জানতে পারেন অ্যান্ড্রু। তবে জানার পরই তিনি সিদ্ধান্ত নেন, প্রেমিকার বাবাকে একটি কিডনি দান করবেন।

অ্যান্ড্রু বলেন, অ্যাশলের বাবার কথা শুনে তিনি বিষয়টি নিয়ে চিন্তিত হয়ে পড়েন। কিডনি দানের চিন্তা ভাবনা নিয়ে পড়াশোনা শুরু করেন। দেখেন তার কিডনি ম্যাচ করছে কি-না। এরপর কিডনি দান করার সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

এরপর পরিবার ও চিকিৎসকদের সঙ্গে আলোচনা চলে। তারা সবুজ সংকেত দেন। চিকিৎসকরা জানান, অ্যান্ড্রুর কিডনি পলের শরীরে প্রতিস্থাপন করলে কোনো সমস্যা হবে না।

পলের পরিবার অ্যান্ড্রুকে ধন্যবাদ জানিয়েছে। পল নিজে বলেছেন, এভাবে সহায়তার হাত বাড়িয়ে জীবন বাঁচানোর জন্য তিনি অ্যান্ড্রুর কাছে কৃতজ্ঞ।

advertisement