advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বিয়ে করলেই নববধূকে দেওয়া হবে ১০ গ্রাম সোনা!

অনলাইন ডেস্ক
২১ নভেম্বর ২০১৯ ১৬:৫২ | আপডেট: ২১ নভেম্বর ২০১৯ ১৮:৪৫
প্রতীকী ছবি
advertisement

বিয়ে করলেই নববধূকে ১০ গ্রাম সোনা উপহার দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে আসামের রাজ্য সরকার। আসছে নতুন বছর ২০২০ সালের জানুয়ারি থেকে অরুন্ধতী স্বর্ণ প্রকল্পের আওতায় নববধূকে এই সোনা উপহার হিসাবে দেওয়া হবে।

তবে সরকারের পক্ষ থেকে নববধূকে ১০ গ্রাম সোনা কেন উপহার দেওয়া হবে-এ প্রশ্নের জবাবে আসামের অর্থমন্ত্রী হেমন্ত বিশ্বশর্মা জানিয়েছেন, বাল্যবিবাহ রোধেই রাজ্য সরকার এই পদক্ষেপ নিয়েছে। আর এ প্রকল্পের ফলে সরকারের প্রায় ৮০০ কোটি টাকা খরচ হবে।

অরুন্ধতী স্বর্ণ প্রকল্পে নববধূর উপহার পাওয়ার ক্ষেত্রে কতগুলি শর্ত থাকবে। সেগুলো হলো নববধূর বয়স কমপক্ষে ১৮ বছর হতে হবে এবং বরের বয়স হতে হবে ২১ বছর। আর অবশ্যই বিয়ের রেজিস্ট্রি করতে হবে। কেননা বিয়ের রেজিস্ট্রি করা না হলে ওই বিয়ের আইনি কোনো স্বীকৃতিই নেই।

এছাড়াও অরুন্ধতী স্বর্ণ প্রকল্পের সুবিধা নিতে হলে আর একটি গুরুত্বপূর্ণ শর্ত হলো, কনের পরিবারের বার্ষিক আয় পাঁচ লাখের কম হতে হবে।

এছাড়াও হেমন্ত বিশ্বশর্মা আরও জানান, এই স্বর্ণ নববধূদের হাতে তুলে দেওয়া হবে না। রেজিস্ট্রি করার পরে সোনার মূল্য বাবদ ৩০ হাজার টাকা নববধূর ব্যাংক হিসাবে জমা করে দেওয়া হবে।

এ ছাড়া তিনি আরও জানান, এই সুবিধা শুধুমাত্র প্রথম বিয়ের ক্ষেত্রেই পাওয়া যাবে। এ ছাড়া এই বিয়েটি ১৯৫৪ স্পেশাল ম্যারেজ আইন অনুযায়ী হতে হবে।

বিভিন্ন সূত্রের বরাতে ভারতের সংবাদমাধ্যম জানায়, বর্তমানে আসামে প্রতিবছর প্রায় ৩ লাখ বিয়ে হয় যার মধ্যে কেবল ৫০-৬০ হাজার বিয়ের ক্ষেত্রে রেজিস্ট্রি করা হয়। তাই আসামের অর্থমন্ত্রীর আশা করছেন অরুন্ধতী স্বর্ণ প্রকল্প চালু হলে অন্তত আড়াই লাখ বিয়ের রেজিস্ট্রি করা হবে।

advertisement