advertisement
advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বঙ্গবন্ধু বিপিএলের জমকালো উদ্বোধন আজ

ক্রীড়া প্রতিবেদক
৮ ডিসেম্বর ২০১৯ ০০:০০ | আপডেট: ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ ১১:২৫
advertisement

দিনের আলো নিভে গেছে। চারদিকে নেমেছে অন্ধকার। হঠাৎ করেই মিরপুরে শের-ই বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামের পূর্ব পাশে মঞ্চের মধ্যভাগে জায়ান্ট স্ক্রিনে ভেসে উঠল লাল-সবুজ পতাকা। লেজার লাইটের আলোয় আরও রঙিন হয়ে ওঠে মঞ্চ। মঞ্চের সামনে ও পেছনে মোট ৮টি জায়ান্ট স্ক্রিন অস্থায়ীভাবে বসানো হয়েছে। সব কিছু ঠিকঠাক আছে কিনা- তা গতকাল পরীক্ষা করে দেখেন কর্মীরা। তুলির শেষ আঁচড় টেনেছেন। আজ এই মঞ্চেই বঙ্গবন্ধু বিপিএলের উদ্বোধন ঘোষণা করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০০তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে এবার বিশেষ বিপিএল আসরের আয়োজন করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। এ জন্য জমকালো উদ্বোধনী অনুষ্ঠানেরও আয়োজন করা হয়। প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনী ঘোষণার আগে ও পরে দেশি-বিদেশির পারফরমাররা গাইবেন-নাচবেন। বিপিএলের উদ্বোধনীর আনন্দ-উৎসবে মাতোয়ারা হবেন দর্শকরা।

বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সবচেয়ে বড় আকর্ষণ বলিউড সুপার স্টার সালমান খান ও ক্যাটরিনা কাইফ। আজ সকালে ঢাকা এসে পৌঁছবেন এ দুই জনপ্রিয় ভারতীয় তারকা। তাদের সঙ্গে সনু নিগাম ও কৈলাস খের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান মাতাবেন। গতকাল ঢাকায় এসেছেন কৈলাশ খের। আজ দুপুরের মধ্যেই আসবেন সনু নিগাম। দেশের পারফরমারদের মধ্যে জেমসসহ অনেকে রয়েছেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানকে দুই পর্বে সাজানো হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনী ঘোষণার আগে বিকাল ৫টা ২৫ মিনিটে ডি রকস্টার শুভর পারফরমের মধ্য দিয়ে শুরু হবে অনুষ্ঠান। এর পর রেশমি মির্জার আয়োজন, জেমস ও মমতাজের সুরের ঝংকার উঠবে। সন্ধ্যা ৭টা ২০ থেকে ৭টা ৩০ মিনিটের মধ্যে মঞ্চে আসবেন প্রধানমন্ত্রী। বঙ্গবন্ধু কন্যা আসরের উদ্বোধনী ঘোষণা করবেন। এর পরের পর্বে শুরুতেই আতশবাজিতে আলোকিত হয়ে উঠবে মিরপুর। এর পর ভারতের সংগীত তারকা সনু নিগাম গাইবেন। কৈলাস খেরের পারফরমেন্সের পর বলিউড অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কাইফ ও অভিনেতা সালমান খানের পারফরমেন্সে শেষ হবে অনুষ্ঠান।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানকে ঘিরে নিরাপত্তার চাদরে ঢাকা হয়েছে মিরপুর স্টেডিয়াম। গতকাল বিকালে নিরাপত্তা কর্মীরা মহড়া দিয়ে যান। দুপুরে সংবাদ সম্মেলনে বিসিবির প্রধান নির্বাহী জানান, তাদের প্রস্তুতি সম্পন্ন। এখন শুধু বিপিএলের উদ্বোধনের পালা। সাতটি দলের ক্রিকেটারদের সবার উপস্থিতি কামনা করেন। তবে অন্য টুর্নামেন্টের উদ্বোধনীর মতো আলাদা করে প্রত্যেক দলের অধিনায়ক কিংবা খেলোয়াড়দের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে পরিচয় করে দেওয়া হচ্ছে না।

আগেই বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন জানিয়েছিলেন, বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের টিকিটের চাহিদা অনেক। সাধারণ দর্শকদের জন্য ৭-৮ হাজার টিকিট মিলবে। তবে বিসিবি অন গ্রাউন্ড সিটিং ক্যাটাগরির টিকিট বাড়িয়েছে। নতুন করে যুক্ত করা অন গ্রাউন্ড ক্যাটাগরির টিকিটের মূল্য ধরা হয়েছে ৫ হাজার টাকা। এরই মধ্যে গত শুক্রবার থেকে বিক্রি শুরু হয়েছে বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের টিকিট। টিকিটের সর্বনিন্ম মূল্য ১ হাজার এবং সর্বোচ্চ ১০ হাজার টাকা। আজ বিপিএলের উদ্বোধনী ঘোষণা হলেও আগামী ১১ ডিসেম্বর মাঠের লড়াই শুরু হবে।

advertisement