advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

জেনেভায় বাংলাদেশ মিশনে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত

অনলাইন ডেস্ক
১২ জানুয়ারি ২০২০ ২০:১৮ | আপডেট: ১২ জানুয়ারি ২০২০ ২০:১৮
advertisement

যথাযোগ্য মর্যাদার মধ্য দিয়ে জেনেভাস্থ বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত হয়েছে। একই সঙ্গে জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী ও মুজিববর্ষের ক্ষণগণনা উপলক্ষে স্মারক সভার আয়োজন করা হয়।

জেনেভাস্থ জাতিসংঘে নিযুক্ত বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি ও সুইজারল্যান্ডে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মো. শামীম আহসানের সভাপতিত্বে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে মিশনের কর্মকর্তা, কর্মচারীসহ সুইজারল্যান্ডে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশিরা অংশগ্রহণ করেন।

ঐতিহাসিক স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস এবং জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী ও মুজিববর্ষের ক্ষণগণনা উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী কর্তৃক প্রদত্ত বাণী পাঠ করা হয়। এ ছাড়া মুজিববর্ষের ওপর নির্মিত স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

রাষ্ট্রদূত আহসান তার বক্তব্যে স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার লক্ষে বঙ্গবন্ধুর বিচক্ষণ নেতৃত্বের কথা শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন। তিনি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু ১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ প্রথম প্রহরে স্বাধীনতার ঘোষণা দেওয়ার পরই পাকস্তানি হানাদার বাহিনী তাকে গ্রেপ্তার করে। ১৯৭২ সালের এই দিনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু বীরের বেশে ফিরে এসেছিলেন তার প্রিয় স্বদেশে। আর এবারে এই ঐতিহাসিক ১০ জানুয়ারিকে জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী ও মুজিববর্ষের ক্ষণগণনার জন্য নির্বাচন করা হয়েছে।’

রাষ্ট্রদূত উপস্থিত সবাইকে ১৭ মার্চ ২০২০ থেকে ১৭ মার্চ ২০২১ পর্যন্ত বছরব্যাপী জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে মিশন কর্তৃক পরিকল্পিত বিভিন্ন অনুষ্ঠানমালা সম্পর্কে অবহিত করেন এবং এসব অনুষ্ঠানে স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশগ্রহণের জন্য সবাইকে আহ্বান জানান।

সভা শেষে রাষ্ট্রদূত আহসান জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকী ও মুজিববর্ষের ক্ষণগণনা উপলক্ষে প্রকাশিত ‘শতবর্ষের প্রতীক্ষা’ প্রকাশনাটি সংশ্লিষ্ট সবাইকে দেখার জন্য স্থায়ী মিশনের বঙ্গবন্ধু কর্নারে রাখেন।

advertisement