advertisement
advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

রিট খারিজ, নির্ধারিত তারিখেই হবে ঢাকার দুই সিটি নির্বাচন

নিজস্ব প্রতিবেদক
১৪ জানুয়ারি ২০২০ ১৫:৫০ | আপডেট: ১৪ জানুয়ারি ২০২০ ২১:১০
advertisement

সরস্বতী পূজার জন্য ঢাকার দুই সিটি করপোরেশন নির্বাচনের তারিখ পেছানো হচ্ছে না। কমিশন নির্ধারিত তারিখেই দুই সিটির নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

আজ মঙ্গলবার বিচারপতি জেবিএম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন।

হাইকোর্ট থেকে জানানো হয়, আগামী ১ ফেব্রুয়ারি থেকে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শুরু হবে। এ ছাড়া নির্বাচন কমিশনের পক্ষ থেকে প্রতীক বরাদ্দসহ সব রকম প্রস্তুতি ইতিমধ্যে সম্পন্ন হয়েছে। ফলে এখন আর নির্বাচন পেছানোর কোনো সুযোগ নেই।

এর আগে গত ৬ জানুয়ারি সরস্বতী পূজার সঙ্গে ঢাকা সিটি নির্বাচন অনুষ্ঠানের তারিখ ধর্মীয় সাংঘর্ষিক উল্লেখ করে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় রিট দায়ের করেন আইনজীবী অশোক কুমার ঘোষ। গতকাল সোমবার আদালত রিটের শুনানি নিয়ে আজ মঙ্গলবার আদেশের জন্য তারিখ নির্ধারণ করেন।

আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী অশোক কুমার ঘোষ। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল নুর উস সাদিক।

রিট আবেদনে বলা হয়, আগামী ৩০ জানুয়ারি ঢাকার দুই সিটি করপোরেশন নির্বাচনের যে তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে তা বিতর্কিত। কারণ ২৯ ও ৩০ জানুয়ারি হিন্দু সম্প্রদায়ের ‘শ্রী শ্রী সরস্বতী পূজা’ অনুষ্ঠিত হবে। ৩০ জানুয়ারি নির্বাচন থাকায় ওই দিন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ভোটকেন্দ্র তৈরি করা হবে। ফলে এটি ধর্মীয় সাংঘর্ষিক তারিখ বলে রিটে উল্লেখ করা হয়।

রিটে আরও বলা হয়, পঞ্চমী শেষ না হওয়া পর্যন্ত সরস্বতী প্রতিমা বিসর্জন দেওয়া যায় না। বিধায় ঢাকা সিটি করপোরেশন মেয়র নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তন করে ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহে দেওয়ার জন্য নির্দেশনা চাওয়া হলো।

গত ২২ ডিসেম্বর ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ভোটের জন্য ৩০ জানুয়ারি দিন ঠিক করে নির্বাচন কমিশন।

advertisement