advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ঢাকায় বাসযাত্রীকে ধাক্কা চাকায় পিষ্ট দুই পা

১৮ জানুয়ারি ২০২০ ০২:১০
আপডেট: ১৮ জানুয়ারি ২০২০ ০২:১০
advertisement

চলন্ত বাসের দরজায় কথা কাটাকাটি হচ্ছিল যাত্রী আর কন্ডাক্টারের। হঠাৎ দুজনের মাঝে হাতাহাতি শুরু হয়। একপর্যায়ে যাত্রীকে ধাক্কা মেরে নিচে ফেলে দেন কন্ডাক্টর। এতে বাসের চাকার নিচে পড়ে ওই যাত্রীর দুই পা পিষ্ট হয়। গতকাল রাজধানীর কারওয়ানবাজার এলাকায় এ মর্মান্তিক ঘটনা ঘটে। এর দায়ে বাসচালক ও কন্ডাক্টরকে আটক করেছে পুলিশ।
প্রত্যক্ষদর্শীদের কাছ থেকে জানা যায়, গতকাল শুক্রবার রাত পৌনে ৯টার দিকে কারওয়ানবাজারের বিএসিসি ভবনের সামনে ৮ নম্বর পরিবহনের একটি চলন্ত বাস থেকে যাত্রী শরিফুল ইসলামকে ধাক্কা মেরে ফেলে দেওয়া হয়। এ সময় শরিফুল নিজের দেহ সরিয়ে নিতে পারলেও তার দুই পা বাসের চাকায় পিষ্ট হয়। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিক্যালে কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।
বাসটির যাত্রী নেওয়াজ শরীফ জানান, বাসের দরজার সামনে শরিফুলের সঙ্গে কন্ডাক্টরের কথা কাটাকাটি হচ্ছিল।
পরে তাদের মধ্যে হাতাহাতি বেধে যায়। এক পর্যায়ে ওই যাত্রীকে পড়ে যেতে দেখি। এ ঘটনায় বাসের যাত্রীরা জাতীয় সেবা নম্বর ৯৯৯-এ ফোন করেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে এবং বাসটি জব্দ করে।
আহত শরিফুল জানান, শ্যামলী থেকে ওই বাসে ওঠেন তিনি। বাসটি কারওয়ানবাজার পৌঁছলে সেখানে নামতে চান। তবে ড্রাইভার কিছুতেই গতি কমাচ্ছিল না। এতে কন্ডাক্টরের সঙ্গে তর্ক হয়। একপর্যায়ে কন্ডাক্টর তাকে ধাক্কা দিয়ে বাস থেকে ফেলে দেয়।
শাহবাগ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) কামাল উদ্দিন মুনশি বলেন, দুর্ঘটনার পরপরই বাসটি জব্দ করা হয়েছে। চালক পারভেজ ও অভিযুক্ত কন্ডাক্টর আরিফকে আটক করা হয়েছে। এ ছাড়া আহত যাত্রীকে ঢাকা মেডিক্যালে নিয়ে এক্স-রে করা হয়েছে। তার পা কাটা পড়বে না বলে প্রাথমিকভাবে জানিয়েছেন চিকিৎসক।

 

advertisement