advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

সোলেইমানি হত্যার ‘মূল পরিকল্পনাকারী’ নিহত

অনলাইন ডেস্ক
২৮ জানুয়ারি ২০২০ ২০:১৬ | আপডেট: ২৯ জানুয়ারি ২০২০ ১০:৩৮
কাসেম সোলেইমানি (বাঁয়ে) ও মাইকেল ডি আন্দ্রেয়া
advertisement

আফগানিস্তানের মধ্যাঞ্চলীয় গজনি প্রদেশে যুক্তরাষ্ট্রের একটি গোয়েন্দা বিমান বিধ্বস্ত হয় গতকাল সোমবার। এ দুর্ঘটনায় মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার অপারেশন বিভাগের প্রধান মাইকেল ডি আন্দ্রেয়া নিহত হয়েছেন।  

রাশিয়ার কয়েকটি গোয়েন্দা সূত্রের বরাত দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের ভেটারন্স টুডের ওয়েবসাইটে এ খবর দেওয়া হয়েছে। এতে বলা হয়, বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় যুক্তরাষ্ট্রের গোয়েন্দা সংস্থার মোট ছয়জন নিহত হন, যার মধ্যে আন্দ্রেয়া রয়েছেন।

ইরানের গণমাধ্যম পার্স টুডে’র প্রতিবেদনে বলা হয়, ইরাক, ইরান ও আফগানিস্তানে গোয়েন্দা অপারেশন চালানোর দায়িত্বে ছিলেন মাইকেল আন্দ্রেয়া। বলা হচ্ছে, তিনিই ইরানের ইসলামি বিপ্লবী গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসি'র কুদস ফোর্সের কমান্ডার লেফটেন্যান্ট জেনারেল কাসেম সোলেইমানিকে হত্যার অভিযান পরিচালনা করেছেন।

গত ৩ জানুয়ারি মার্কিন সামরিক বাহিনী ইরাকের বাগদাদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কাছে ড্রোন থেকে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়ে জেনারেল সোলেইমানি এবং ইরাকের পপুলার মোবিলাইজেশন ইউনিটের সেকেন্ড ইন-কমান্ড আবু মাহদি আল মুহান্দিসসহ তাদের ১০ নিরাপত্তারক্ষীকে হত্যা করে। এই ড্রোন হামলার নেতৃত্ব দেন মাইকেল আন্দ্রেয়া।

এদিকে আফগান তালেবান জানায়, বিধ্বস্ত বিমান উদ্ধারে আফগানিস্তানের সরকারি সেনারা কয়েক দফা চেষ্টা চালালেও তাদের প্রচেষ্টা ব্যর্থ করে দেওয়া হয়েছে। তালেবান দাবি করেছে, বিমানটি তারা ভূপাতিত করেছে এবং বিমানের আরোহী গোয়েন্দা কর্মকর্তাদের লাশ উদ্ধারের জন্য কোনো টিম গেলে শুধুমাত্র তাদের লাশ উদ্ধারের অনুমতি দেওয়া হবে।

গতকাল আমেরিকার বোম্বার্ডিয়ার ই-১১এ বিধ্বস্ত হয়। তবে বিমানে আরও কেউ ছিল কি না, তা পরিষ্কার নয়। কারণ বিমানটি বিধ্বস্ত হলে তাতে আগুন ধরে যায় এবং বেশিরভাগ জিনিস পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

advertisement
Evaly
advertisement