advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ডেঙ্গু আক্রান্ত ৭ রোগী হাসপাতালে চিকিৎসাধীন

ইউএনবি
১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ১৯:২৭ | আপডেট: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০ ২৩:১৪
প্রতীকী ছবি
advertisement

বর্তমানে ডেঙ্গু রোগে আক্রান্ত হয়ে সাতজন দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন। তাদের মধ্যে ঢাকার হাসপাতালগুলোতে ভর্তি রয়েছেন ছয়জন।

আজ শুক্রবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম এ তথ্য জানিয়েছে। এদিকে আজ সকাল ৮টা পর্যন্ত গত ২৪ ঘণ্টায় ঢাকায় একজন নতুন ডেঙ্গু রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন।

সদ্য সমাপ্ত ২০১৯ সালে দেশে ডেঙ্গু জ্বরের ভয়াবহ প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়। সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউট (আইইডিসিআর) ২৬৬টি ডেঙ্গুজনিত মৃত্যুর প্রতিবেদনের মধ্যে ২৬৩টি ঘটনা পর্যালোচনা করে ১৬৪ জনের মৃত্যু ডেঙ্গুজনিত বলে নিশ্চিত করে।

গত বছর দেশে এক লাখ ১ হাজার ৩৫৪ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে ভর্তি হন। তাদের মধ্যে চিকিৎসা শেষে ছাড়পত্র নিয়ে বাড়ি ফেরেন এক লাখ ১ হাজার ৩৭ জন। এ বছর ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ২২৮ জন হাসপাতালে ভর্তি হন। এর মধ্যে ২২১ জন চিকিৎসা শেষে বাড়ি ফিরে যান।

ডেঙ্গু জ্বর এক ধরনের মশাবাহিত ভাইরাল ফ্লু। এর প্রভাবে সাধারণত প্রচণ্ড জ্বর, মাথা ব্যথা, বমি বমি ভাব, পেশী এবং জয়েন্টে ব্যথা এবং ত্বকে ফুসকুড়িসহ মারাত্মক কিছু লক্ষণ দেখা দেয়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডাব্লিউএইচও) বলেছে যে সাম্প্রতিক দশকগুলোতে বিশ্বজুড়ে ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব নাটকীয়ভাবে বেড়েছে। বিশ্বের প্রায় অর্ধেক মানুষ এর ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। প্রতি বছর প্রায় ৩৯ কোটি মানুষ এ জ্বরে আক্রান্ত হয় বলে অনুমান ডাব্লিউএইচও’র।

সংস্থাটির মতে, ডেঙ্গুর সুনির্দিষ্ট কোনো চিকিৎসা নেই, তবে প্রাথমিক পর্যায়ে শনাক্ত করা গেলে এবং সঠিক চিকিৎসা পেলে আক্রান্তদের মৃত্যুর হার এক শতাংশেরও নিচে নেমে আসে।

advertisement