advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মাদক ব্যবসায়ী নিহত

টেকনাফ প্রতিনিধি
২ মার্চ ২০২০ ১০:৪৪ | আপডেট: ২ মার্চ ২০২০ ১১:৩৯
ছবি : আমাদের সময়
advertisement

কক্সবাজারের টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সদস্যদের সঙ্গে কথিত বন্দুকযুদ্ধে নুর আলম (৩০) নামে এক রোহিঙ্গা নিহত হয়েছেন। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ১ লাখ ৫০ হাজার পিস ইয়াবা ও একটি দেশীয় তৈরি এলজি বন্দুক উদ্ধার করা হয়েছে।

আজ সোমবার ভোররাত সাড়ে ৪টার দিকে টেকনাফ উপজেলার জাদিমোরা নাফ নদী পয়েন্টে এ ঘটনা ঘটে। নিহত নুর আলম মিয়ানামার মংডু এলাকার জাফর আলমের ছেলে।

টেকনাফ ২নং বিজিবির অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফের নয়াপাড়া বিওপির বিশেষ একটি টহল দল মাদকের চালান আসার সংবাদ পেয়ে জাদিমোরা খাল সংলগ্ন পয়েন্টে অবস্থান নেয়। কিছুক্ষণ পর মাদকের একটি চালান নিয়ে নৌকাযোগে ২/৩ জন ব্যক্তি কিনারায় উঠে পালিয়ে যাওয়ার সময় বিজিবি জওয়ানরা চ্যালেঞ্জ করলে মাদককারবারীরা বিজিবি জওয়ানদের লক্ষ্য করে গুলিবর্ষণ করেন।

আত্মরক্ষার্থে বিজিবিও পাল্টা গুলি করেন। এ সময় বিজিবির তিনজন জওয়ান আহত হয়। পরে ঘটনাস্থল তল্লাশি করে দেড় লাখ ইয়াবা, ১টি দেশীয় অস্ত্র ও ২ রাউন্ড তাজা কার্তুজসহ গুলিবিদ্ধ নুর আলমকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য টেকনাফ উপজেলা সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করে।

মৃতদেহ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়েছে। এ ব্যাপারে টেকনাফ থানায় সংশ্লিষ্ট আইনে মামলার প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে বলেও জানান বিবিজির এই কর্মকর্তা।

advertisement
Evaly
advertisement