advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ফুলবাড়ী ও চৌগাছায় ২৩ বাড়ি লকডাউন

ফুলবাড়ী ও চৌগাছা প্রতিনিধি
৩০ মার্চ ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৩০ মার্চ ২০২০ ০০:০৯
advertisement

কোভিট-১৯ করোনা ভাইরাস সংক্রমণ সন্দেহে কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী ১৮ ও যশোরের চৌগাছায় ৫ বাড়ি লকডাউন ঘোষণা করেছে স্থানীয় প্রশাসন।

হোম কোয়ারেন্টিনে থাকা ফুলবাড়ী উপজেলার ১৮ ব্যক্তির বাড়ি লকডাউন ঘোষণা করে সেনাবাহিনী, আইন-শৃঙ্খলারক্ষাকারী বাহিনী ও উপজেলা স্বাস্থ্য প্রশাসন। বাড়িগুলোতে বিভিন্ন দেশফেরত ১৮ নারী ও পুরুষ রয়েছেন। তারা হলেনÑ উপজেলার ফুলবাড়ী ইউনিয়নের চন্দ্রখানা (ভুতমারী) গ্রামের উকিল, বিদ্যাবাগীশ গ্রামের নাসির উদ্দিন ও ফরিদা বেগম, প্রাণকৃষ্ণ গ্রামের শাহআলম মিয়া, পানিমাছকুটি গ্রামের নুর ইসলাম, কাশিপুর ইউনিয়নের মধ্য-কাশিপুর গ্রামের মজিদুল হক, মিনারা বেগম ও তাজুল ইসলাম, অনন্তপুর গ্রামের লতিবুল কবির লাভলু, ধর্মপুর গ্রামের আশরাফুল হক, ধর্মপুর গ্রামের জমিলা খাতুন, কাশিপুর গ্রামের সাইদুর রহমান, তালুক শিমুলবাড়ী গ্রামের কমলা রানী, জাকলাটারি গ্রামের ইসরাইল হোসেনের ছেলে হাসানুর রহমান (৪০), উত্তর বড়ভিটা গ্রামের আখতারুজ্জামান, হানিফা বেগম ও আরিফ মিয়া এবং দক্ষিণ নগরাজপুর গ্রামের মাহাবুল হক। এ ব্যাপারে ফুলবাড়ী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাছুমা আরেফিন জানান, উপজেলায় বিদেশ ফেরত ৬৬ জন আছেন। ১৪ দিন তাদের হোম কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়। তাদের মধ্যে ১৮ জনকে সন্দেহ করে নিজ বাড়িতে লকডাউন করে রাখা হয়েছে।

এদিকে যশোরের চৌগাছায় রেনুকা ওরফে রিয়া নামে এক নারী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত সন্দেহে পাঁচটি বাড়ি লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। গতকাল রবিবার দুপুরে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহিদুল ইসলাম, পৌর মেয়র নূর উদ্দিন আল মামুন হিমেল ও এসিল্যান্ড নারায়ণ চন্দ্র পাল পৌরসভার পশ্চিম কারিগর পাড়ার দুটি বাড়ি লকডাউন করেন। পরে ওই নারীর স্বামী পরিচয় দানকারী উপজেলার হাকিমপুর গ্রামের দাউদ হোসেন মিস্ত্রির ছেলে মমিনুর রহমানের বাড়ি লকডাউন করা হয়। মমিনুর বিদেশ ফেরত বলে জানা গেছে। পরে পার্শ্ববর্তী আরও দুটি বাড়ি লোকডাউন ঘোষণা করা হয়।

advertisement