advertisement
advertisement

করোনা সচেতনতা তৈরিতে গাজীপুর পুলিশের গান

গাজীপুর সদর প্রতিনিধি
৬ এপ্রিল ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৬ এপ্রিল ২০২০ ০০:৫৪
advertisement

‘করোনা ভাইরাস মোকাবিলায় করণীয় কী, তা জানেননি; শুনেন তবে আমরা কইতাছিÑ গাজীপুুরবাসী আমরা পুুলিশ, আমরা কইতাছি। বিদেশ গনে আইলে পোলা ছুঁইব না বাপ-মা ও বউ বাচ্চা কেহ তাহার সঙ্গ দেব না। ভাববেন পোলা ১৪টা দিন দেশে আসেনি, গাজীপুুরবাসী আমরা পুুলিশ, আমরা কইতাছি।’

এ রকমই গানের তালে তালে নেচেগেয়ে গাজীপুরের বিভিন্ন পথে-প্রান্তরে ঘুরছেন পুলিশ সদস্যরা। করোনা ভাইরাস সংক্রমণ রোধে সাধারণ মানুষকে ঘরে থাকতে সচেতন করতে ঘুরে বেড়াচ্ছেন গাজীপুরের পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার। গানটির লেখক ও সুরকার পুলিশ সুপারের বাবা অ্যাডভোকেট শামসুল হক ভোলা মাস্টার এবং গানে কণ্ঠ দিয়েছেন জেলা পুলিশের সদস্যরা।

শনিবার সন্ধ্যায় গাজীপুরের শ্রীপুর পৌর এলাকার মাওনা চৌরাস্তার শ্রীপুর সড়কে এ রকমই এক ভিন্ন করোনা ভাইরাস সচেতনতামূূলক অনুষ্ঠান হয়। এতে গাজীপুর পুলিশের বাদ্যযন্ত্র দল ছাড়াও কালিয়াকৈর সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার আল মামুন, শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা লিয়াকত আলী, পরিদর্শক আবুল কাশেমসহ পুলিশের একাধিক কর্মকর্র্তা অংশ নেন।

গান ও সচেতনতামূলক অনুষ্ঠান সম্পর্কে গাজীপুরের পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার বলেন, এখন মুজিববর্ষ চলছে। আর এই মুজিববর্ষে পুলিশের সেøাগান হলোÑ ‘মুজিববর্ষের অঙ্গীকার, পুলিশ হবে জনতার’।

এরই অংশ হিসেবে আমরা গাজীপুর জেলা পুুলিশ অন্তরের অন্তস্থল থেকে করোনা ভাইরাসের যে ভয়াবহতা সেটি সাধারণ মানুষকে বোঝানোই আমাদের এ প্রচারের লক্ষ্য।

করোনা ভাইরাসের সচেতনতায় আমরা পুুলিশের পক্ষ থেকে মাইকিং করছি, গাড়িতে মাইক লাগিয়ে পোস্টারিং করছি। এ ছাড়া আমাদের যত থানা, ক্যাম্প, পুলিশ ফাঁড়ি আছে তাতে বেসিন লাগিয়ে সেখানে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ও সাবান দিয়ে হাত ধোয়ার ব্যবস্থা করেছি। আমরা গানের মাধ্যমে সচেতন করতে চাচ্ছি। গানের প্রত্যেকটি কথা মানুষকে সচেতন করার জন্য, নিজে থেকে অনুধাবন করার জন্য।

advertisement