advertisement
advertisement

আওয়ামী লীগের ত্রাণ কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে

নিজস্ব প্রতিবেদক
৯ এপ্রিল ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৮ এপ্রিল ২০২০ ২৩:৩৬
advertisement

আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আহ্বানে সারাদিনে আওয়ামী লীগ নেতাদের পাশাপাশি ব্যক্তিগত উদ্যোগেও দরিদ্রদের মাঝে চলছে খাদ্য বিতরণ, সেই সঙ্গে সচেতনতামূলক কার্যক্রমও অব্যাহত রেখেছেন তারা। দুর্যোগ শেষ না হওয়া পর্যন্ত মানুষের পাশে থাকার নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সেই সঙ্গে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য সমাজের বিত্তশালীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী তার উপকমিটির উদ্যোগে প্রতিদিনই বিভিন্ন পেশাজীবীর মাঝে মাস্ক, স্যানিটাইজার, পিপিই ও শুকনো খাবার বিতরণ করছেন। তিনি জানান, দুর্যোগ শেষ না হওয়া পর্যন্ত তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে এ কাজ চালিয়ে যাবেন।

ঢাকাস্থ নেত্রকোনাবাসী ও নেত্রকোনা জেলার মদন, মোহনগঞ্জ ও খালিয়াজুড়ি উপজেলায় দরিদ্রদের মাঝে ধারাবাহিকভাবে নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী, মাস্ক ও স্যানিটাইজার দিয়ে যাচ্ছেন বাংলাদেশ বিমান পরিচালনা পরিষদের চেয়ারম্যান (অব. সিনিয়র সচিব) সাজ্জাদুল হাসান।

সাজ্জাদুল হাসানের ব্যক্তিগত উদ্যোগের পাশাপাশি তার নির্দেশে ঢাকাস্থ মোহনগঞ্জ সমিতির সদস্যরা ফান্ড তৈরি করে এ মানবিক কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছেন।

এ বিষয়ে সাজ্জাদুল হাসান বলেন, মানুষ হিসেবে মানুষের দায় রয়েছে। মানুষের পাশে দাঁড়ানোর জন্য কোনো পদ-পদবির প্রয়োজন হয় না; দরকার সদিচ্ছা। সেই সদিচ্ছার জায়গা থেকে কাজ করছি, করে যাব ইনশা আল্লাহ।

রাজধানীর রায়েরবাজার বশিরের বস্তি ও রাশবর্তী বস্তিতে নিম্নআয়ের ২শ পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতারণ করেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য শাহাবুদ্দিন ফরাজি। গতকাল বুধবার দুপুরে বিতরণ করা এ খাদ্যসামগ্রীর প্রতি প্যাকেটে ছিল ৮ কেজি চাল, ২ কেজি ডাল, ৩ কেজি আলু, ১ কেজি লবণ এবং ১ লিটার তেল।

ওই এলাকার যারা ঘরে ছিলেন না, তাদের প্রত্যেকের ঘরের দরজার সামনে খাবারের প্যাকেট দিয়ে আসেন আওয়ামী লীগের এই নেতা। তিনি জানান, শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করা হয়। তার টিমের কয়েকজন আগে থেকেই শৃঙ্খলভাবে খাদ্যসামগ্রী বিতরণের কাজটি সম্পন্ন করেন।

ঢাকা মহানগর উত্তর আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হাসান হাবীবও নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যসামগ্রী বিতরণ অব্যাহত রেখেছেন। উত্তরা এলাকার ১২টি ওয়ার্ডের মধ্যে ৫টি ওয়ার্ডে তিনি ইতোমধ্যে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেছেন, বাকি ওয়ার্ডগুলোতেও আজ ও আগামীকাল খাদ্য বিতরণ করবেন বলে জানান তিনি।

ব্যতিক্রমী উদ্যোগ নিয়ে প্রতিদিন থাকছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ২১নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আছাদুজ্জামান আসাদ? সারাদিনই তিনি তার এলাকার মানুষকে সহায়তা দিয়ে যাচ্ছেন। দিনের শুরুটা হয় এলাকার পরিচ্ছন্ন করার কাজের মধ্য দিয়ে। এরপর খাদ্যদ্রব্য বিতরণ ও জনসচেতনতামূলক কাজে। গতকাল বুধবার থেকে তিনি তরকারিও বিতরণ করছেন। পাশাপাশি এলাকায় সতর্কতামূলক অভিযান তিনি অব্যাহত রেখেছেন।

সাবেক ছাত্রনেতা বর্তমান আওয়ামী লীগ নেতা আনোয়ারুল কবীর কিশোরগঞ্জ জেলার হোসেনপুর থানায় স্প্রে মেশিন বিতরণের পর ৯শ মানুষের মাঝে খাদ্য বিতরণ করেছেন এবং তার এই কার্যক্রম অব্যাহত রাখবেন বলেও জানান তিনি।

এ ছাড়াও ঢাকা মহানগর উত্তর-দক্ষিণ আওয়ামী, যুবলীগ, ছাত্রলীগ খাদ্যসামগ্রী বিতরণের পাশাপাশি জনসচেতনতামূলক প্রচার অব্যাহত রেখেছেন।

ঢাকা মহানগর উত্তরের ১৪নং ওয়ার্ডে যুবলীগের উদ্যোগে ৫শ পরিবারের মাঝে করোনায় কর্মহীন গরিব-অসহায় মানুষের মাঝে নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্য বিতরণ করা হয়। এ সময় যুবলীগের স্থানীয় নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

advertisement