advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ভাইকে হাতুড়িপেটা, বোনকে ধর্ষণ!

পিরোজপুর প্রতিনিধি
২৩ মে ২০২০ ১৩:৩৩ | আপডেট: ২৩ মে ২০২০ ১৮:৩১
advertisement

পিরোজপুরের কাউখালী উপজেলায় বাড়ি ফেরার পথে এক যুবককে (২২) হাতুড়িপেটা ও তার বোনকে (২৪) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। গতকাল শুক্রবার রাত আটটার দিকে উপজেলার শিয়ালকাঠি ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। তাদেরকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

হামলায় আহত ভাই জানান, শুক্রবার রাতে ওই গ্রামের মহারাজ হোসেনের বাড়িতে মাছ দিয়ে ফেরার সময় তার (মহারাজ) শ্বশুর এছাহাক শিকদারের বাড়ির কাছে পৌঁছলে স্থানীয় ৬/৭ জন দুর্বৃত্ত তার বোনকে তুলে নিতে চায়। এতে বাধা দিলে হামলাকারী স্থানীয় মোজাম্মেল বয়াতীর ছেলে জামাল বায়াতী (২৮), মোসলেম শিকদারের ছেলে জিয়াদুল শিকদার (২৫), শাহীন হাওলাদারের ছেলে আবু বক্কর ছিদ্দিকী (২৪), মাহাবুব শিকদারের ছেলে মিজান শিকদার (২৬) ও হক মৃধার ছেলে ইব্রাহিম মৃধা (২৩) তাকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে আহত করে রাস্তায় ফেলে রেখে যায়।

এ সময় তাদের সঙ্গে থাকা মোসলেম গাজীর ছেলে কামাল গাজী (৩৫)ও আকব্বর আলী হাওলাদারের ছেলে শাহীন হাওলাদার (২৫) এই দুজন তার বোনকে ধরে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ করে। পরে স্থানীয়রা তাদের অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডাক্তার সুভ্রত বিশ্বাস জানান, ওই নারীকে হাসপাতালে ভর্তি করার কিছু পর তার জ্ঞান ফেরে। তার ভাইয়ের শরীরের ডান হাঁটু, ডান হাঁটুর নিচে ও বাম হাতের কনুই থ্যাতলানো এবং মাথার উপরে ডান পাশে কাটা চিহ্ন পাওয়া গেছে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে থানা পুলিশের ওসি (তদন্ত) মো. রেজাউল করিম রাজিব জানান, শুক্রবার রাতে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে। মারপিটের ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে। ভুক্তভোগী স্বামী পরিত্যক্তা ওই নারীকে মেডিকেল টেস্টের জন্য পিরোজপুর জেলা হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

ঘটনার সঙ্গে জড়িত কামাল গাজী স্থানীয় শীর্ষ সন্ত্রাসী। তার নামে কয়েকটি মামলা রয়েছে। তাদেরকে ধরার চেষ্টা অব্যাহত আছে বলেও জানান পুলিশের এই কর্মকর্তা।

advertisement