advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

লিভারপুল চ্যাম্পিয়ন

ক্রীড়া ডেস্ক
২৭ জুন ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ২৭ জুন ২০২০ ০২:১৪
advertisement

দক্ষিণ এবং উত্তর আমেরিকার দুই তারকার গোলে ম্যানচেস্টার সিটি বধ ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের চেলসির। এই হাইভোল্টেজ সূচি নিয়ে ম্যাচের আগের দিন থেকেই উত্তেজনা ছিল চরমে। ফুটবল ফেরার পর দুটি ম্যাচ খেলে দাপট দেখিয়ে জয় তুলেছিল সিটি। গোলের বন্যায় ভেসে গিয়েছিল আর্সেনাল ও বার্নলি। অপরদিকে নিজেদের একমাত্র ম্যাচটিও ভালোভাবেই জিতেছিল চেলসি। তাই কৌতূহল ছিল এই ম্যাচে কারা জেতে। শেষপর্যন্ত হাইভোল্টেজ ম্যাচে সবাইকে চমকে দিয়ে সিটিকে ২-১ গোলে হারিয়ে দেয় ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ডের ছেলেরা। আর এতেই চলতি মৌসুমের ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের শিরোপা জিতে গেছে লিভারপুল। তা-ও কি না ৭ ম্যাচ হাতে রেখেই।

প্রিমিয়ার লিগের ৩১ রাউন্ড শেষে লিভারপুলের সংগ্রহ ৮৬ পয়েন্ট। অন্যদিকে দুই নম্বরে থাকা ম্যান সিটির ঝুলিতে রয়েছে ৬৩ পয়েন্ট। নিজেদের বাকি থাকা ৭ ম্যাচে পূর্ণ ২১ পয়েন্ট পেলেও সিটির হবে ৮৪ পয়েন্ট। অর্থাৎ লিভারপুল বাকি সব ম্যাচ হারলেও কোনো সমস্যা হবে না, শীর্ষেই থাকবে তারা। খেলার প্রথমার্ধেই ক্রিস্টিয়ান পুলিসিচের গোলে এগিয়ে যায় চেলসি। ৫৫ মিনিটে ফ্রি-কিক থেকে গোল করে সমতা ফেরান সিটি তারকা ডি-ব্রুইনা। কিন্তু ৭৬ মিনিটে গোলমুখী চেলসির শটে হাত লাগিয়ে ফেলে ফার্নানদিনহো। লাল কার্ড দেখে মাঠ ছাড়েন তিনি। পেনাল্টি থেকে গোল করতে ভুল করেননি ব্রাজিলিয়ান তারকা উইলিয়ান। মাঠে না থেকেও লিগ শিরোপা জিতে নিয়েছে লিভারপুল। ১৯৮৯-৯০ মৌসুমে সব শেষ ইংল্যান্ডের শীর্ষপর্যায়ের লিগ জিতেছিল লিভারপুল। নাম বদলে প্রিমিয়ার লিগ হওয়ার পর জেতেনি একবারও। অবশেষে ৩০ বছরের অপেক্ষার অবসান ঘটিয়ে চ্যাম্পিয়ন হলো অলরেডরা।

বৃহস্পতিবার রাতে চেলসির মাঠে খেলতে গিয়ে ম্যাচজুড়ে বল দখলের লড়াইয়ে স্পষ্টত এগিয়ে ছিল ম্যান সিটি। কিন্তু কাজের কাজ গোল হয়েছে মাত্র একটি। অন্যদিকে পেনাল্টি থেকে পাওয়া গোলের সুবাদে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে স্বাগতিকরা।

ম্যাচের ৩৬ মিনিটে অবশ্য প্রথম গোলটা করেছিল চেলসিই। সিটির খেলোয়াড়দের ভুল বোঝাবুঝিতে বল পেয়ে যান ক্রিশ্চিয়ান পুলিসিচ। সুযোগসন্ধানী এ খেলোয়াড় ক্ষিপ্রতার সঙ্গে ভেদ করেন সিটির রক্ষণ, খুঁজে নেন জালের ঠিকানা।

দ্বিতীয়ার্ধে ফিরে ম্যাচে সমতা আনেন সিটির বেলজিয়ান মিডফিল্ডার কেভিন ডি ব্রুইনা। কিন্তু ৭৮ মিনিটে প- হয়ে যায় সব। ডি-বক্সের মধ্যে হ্যান্ড বল করেন ফার্নানদিনহো। পেনাল্টি পায় চেলসি। স্পট কিক থেকে দলের জয় নিশ্চিত করেন ব্রাজিলিয়ার ফরোয়ার্ড উইলিয়ান।

advertisement