advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ইরানের পারমাণবিক স্থাপনায় অগ্নিকা-

আন্তর্জাতিক ডেস্ক
৩ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৩ জুলাই ২০২০ ০০:১৮
advertisement

ইরানের ভূগর্ভস্থ একটি পারমাণবিক স্থাপনায় অগ্নিকা-ের ঘটনা ঘটেছে। দেশটির কর্মকর্তারা এ খবররে সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। রাজধানী তেহরানের দক্ষিণাঞ্চলের ইসফাহান প্রদেশের ভূগর্ভস্থ নাতাঞ্জ পারমাণবিক স্থাপনায় ওই অগ্নিকা- হয়। তবে এতে কেউ হতাহত হয়নি এবং স্থাপনার কর্মকা- অব্যাহত রয়েছে। খবর রয়টার্স

ইরানের পারমাণবিক কর্মকা- নিয়ে পশ্চিমাবিশ্বের বড় ধরনের মাথাব্যথা রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র সব সময় বলে আসছে তেহরান বিপজ্জনক মাত্রা পারমাণবিক অস্ত্র মজুদ করছে। জাতিসংঘের পারমাণবিক পর্যবেক্ষক সংস্থা ইরানে যে কয়েকটি পারমাণবিক স্থাপনা নজরদারিতে রেখেছে নাতাঞ্জ পারমাণবিক স্থাপনা সেগুলোর অন্যতম। প্রায় এক লাখ বর্গমিটার এলাকাজুড়ে ৮ মিটার ভূগর্ভস্থ এই স্থাপনার অবস্থান রাজধানী তেহরান থেকে প্রায় ৩০০ কিলোমিটার দূরে। প্রাথমিকভাবে অগ্নিকা-ের তথ্য নিশ্চিত করেছে ইরানের আণবিক শক্তি সংস্থা। সংস্থাটির মুখপাত্র বেহরুজ কামালবন্দি দেশটির আধাসরকারি সংবাদ সংস্থা তাসনিম নিউজ এজেন্সিকে বলেছেন, পারমাণবিক ওই স্থাপনায় কোনো হতাহত কিংবা ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। স্থাপনাটির কার্যক্রম স্বাভাবিক রয়েছে।

এ ছাড়া নাতাঞ্জ শহরের গভর্নর রমজান আলী ফেরদৌসি জানান, অগ্নিনির্বাপণকর্মীদের ঘটনাস্থলে পাঠানো হয়েছে। তবে অগ্নিকা-ের কারণ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানা যায়নি। ইরানের আণবিক শক্তি সংস্থার একদল বিশেষজ্ঞ পারমাণবিক ওই স্থাপনার অগ্নিকা-ের কারণ জানতে তদন্ত শুরু করেছেন।

২০১৫ সালে ছয় বিশ্ব শক্তির সঙ্গে স্বাক্ষরিত পারমাণবিক চুক্তি অনুযায়ী তেহরান পারমাণবিক কর্মসূচি সীমিত পর্যায়ে নিয়ে আসে। কিন্তু ২০১৮ সালে প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রকে এই চুক্তি থেকে বের করে নিয়ে যাওয়ার ঘোষণা দেয়; একই সঙ্গে পূর্বের নিষেধাজ্ঞা ফিরিয়ে আনা সহ নতুন নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। এরপরই পারমাণবিক চুক্তির প্রতিশ্রুতি থেকে সরে আসতে শুরু করে ইরান।

advertisement