advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

বায়ার্নে সানে

ক্রীড়া ডেস্ক
৪ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৪ জুলাই ২০২০ ০০:০৭
advertisement

বুন্দেসলিগাতে পেশাদারি ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন লেরয় সানে। ২০১৪-১৬ মৌসুম শালকেতে কাটিয়ে জার্মান উইঙ্গার যোগ দেন ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটিতে। ইতিহাদে ২০১৬-২০ মৌসুমের অধ্যায় শেষে ২৪ বছর বয়সী তারকা ফের ফিরে যাচ্ছেন নিজ দেশের শীর্ষ লিগে। তবে এবার তার নতুন ঠিকানা হতে যাচ্ছে বায়ার্ন মিউনিখ। বাভারিয়ানদের সঙ্গে ৫ বছরের চুক্তি সম্পন্ন করেছেন সানে। প্রাথমিকভাবে ৪৪.৭ মিলিয়ন পাউন্ডের চুক্তি করলেও পরে সেই চুক্তি উন্নীত হতে পারে ৫৪.৮ মিলিয়ন পাউন্ডে। ২৪ বছর বয়সী সানের সঙ্গে পাঁচ বছরের চুক্তির বিষয়টি শুক্রবার এক বিবৃতিতে নিশ্চিত করেছে বায়ার্ন। নতুন ঠিকানা সম্পর্কে উচ্ছ্বসিত সানে বায়ার্নকে ‘বড় লক্ষ্যের সেরা ক্লাব’ হিসেবে উল্লেখ করেছেন। তিনি বলেন, ‘বায়ার্নের হয়ে আমি যত সম্ভব সব শিরোপাই জিততে চাই এবং চ্যাম্পিয়নস লিগের প্রতি প্রাধান্য থাকবে বেশি।’

গত বছর ম্যানচেস্টার সিটির ঘরোয়া ট্রেবল জয় অভিযানে দলের অন্যতম অংশ ছিলেন সানে। তবে চলতি মৌসুমে তাকে যুদ্ধ করতে হয়েছে চোটের সঙ্গে। সিটিজেনদের জার্সিতে প্রিমিয়ার লিগে ১৩৫ ম্যাচে ৩৯ গোলের পাশাপাশি ৪৫টি অ্যাসিস্ট করেছেন তিনি। ২০১৬ সালে ৩৭ মিলিয়ন পাউন্ডের বিনিময়ে শালকে ছেড়ে ইতিহাদে আসার পর সানে ২টি প্রিমিয়ার লিগ, এফএ কাপ এবং ২টি লিগ কাপ জিতেছেন।

জার্মানির জাতীয় দলের হয়ে ২১ ম্যাচে খেলা সানে আগামী সপ্তাহে বায়ার্নের সঙ্গে অনুশীলন শুরু করবেন। যদিও ঠিকানা পরিবর্তন করায় চলতি মৌসুমের চ্যাম্পিয়নস লিগে খেলতে পারবেন না তিনি। সানের সঙ্গে চুক্তি করার ব্যাপারে বায়ার্নের প্রধান নির্বাহী কার্ল-হেইঞ্জ রুমিনেগে বলেন, ‘আমাদের লক্ষ্য হলো জার্মানির সেরা খেলোয়াড়দের বায়ার্নে একত্র করা এবং লেরয়ের সঙ্গে চুক্তি করা সেই লক্ষ্যকে জোর দিয়ে।

advertisement