advertisement
Azuba
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

স্মৃতিস্তম্ভ ভাঙা ব্যক্তিদের আইনের আওতায় আনার হুঁশিয়ারি ট্রাম্পের

৪ জুলাই ২০২০ ১১:৪০
আপডেট: ৪ জুলাই ২০২০ ১২:৫৯
মাউন্ট রাশমোরে ডোনাল্ড ট্রাম্প। ছবি : রয়টার্স
advertisement

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বর্ণবাদবিরোধী আন্দোলনের সময় স্মৃতিস্তম্ভ ভাঙা ব্যক্তিদের সমালোচনা করে একে বাতিল সংস্কৃতি হিসেবে অভিহিত করেছেন। পাশাপাশি অভিযুক্তদের আইনের আওতায় আনারও হুঁশিয়ারি দিয়েছেন তিনি।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে বলা হয়, আজ শনিবার যুক্তরাষ্ট্রের স্বাধীনতা দিবসে মাউন্ট রাশমোরে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে দেওয়া এক ভাষণে ট্রাম্প এ কথা বলেন।

ট্রাম্প বলেন, ‘বাতিল সংস্কৃতিই তাদের রাজনৈতিক হাতিয়ার। প্রতিবাদকারীদের প্রতি এ ধরনের পরামর্শ সর্বগ্রাসিতা।’

তিনি বলেন, ‘জাতীয় ঐতিহ্যকে যারা লক্ষ্য করবে তাদেরকে আইনের আওতায় আনা হবে। যারা স্মৃতিস্তম্ভকে অবমাননা করেছেন তাদের ১০ বছরের কারাদণ্ড হতে পারে।’ স্মৃতিস্তম্ভ রক্ষায় তিনি এক নির্বাহী আদেশে সই করেছেন বলে জানিয়েছেন।

ট্রাম্প আরও বলেন, ‘সাউথ ডাকোটা স্মৃতিস্তম্ভটি আমাদের পূর্বপুরুষ এবং আমাদের স্বাধীনতার প্রতি চিরন্তন শ্রদ্ধা হিসেবে চিরকাল দাঁড়িয়ে থাকবে। এই স্মৃতিস্তম্ভকে কখনোই অপমান করা হবে না, এই বীররা কখনোই বিকৃত হবেন না।’

ট্রাম্পের বক্তব্য, আতশবাজি ও সংগীত উপভোগ করতে মাউন্ট রাশমোরের এ অনুষ্ঠানে সাড়ে ৭ হাজার মানুষ টিকিট কেটেছিলেন। তবে ট্রাম্পের এ অনুষ্ঠানে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঘটবে বলে অনেকেই সমালোচনা করেছেন। এ ছাড়া আতশবাজি ফোটানোয় বন্যপ্রাণীরা আতঙ্কে থাকবে বলে এ অনুষ্ঠানের সমালোচনা করে আসছিলেন স্থানীয় আদি-আমেরিকানরা।

advertisement