advertisement
advertisement

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধ’
দুই রোহিঙ্গা মাদক কারবারি নিহত

টেকনাফ প্রতিনিধি
৭ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৬ জুলাই ২০২০ ২২:০৮
advertisement

কক্সবাজারের টেকনাফে কথিত বন্দুকযুদ্ধে দুই রোহিঙ্গা নিহত হয়েছে। রবিবার রাত ১১টার দিকে উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের ওয়াব্রাং নানির বাড়ি এলাকার নাফ নদীর তীরে ওই ঘটনা ঘটে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিজিবির টেকনাফ-২ ব্যাটালিয়ানের অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. ফয়সল হাসান খান। তার দাবি, নিহতরা মাদককারবারি ছিল। সঙ্গে থাকা আইডি কার্ড দেখে তাদের পরিচয় শনাক্ত করা হয়। নিহতরা হলেন- উখিয়ার কুতুপালং ৫ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের জি ব্লকের ২/ই-এর বাসিন্দা মোহাম্মদ শফির ছেলে মোহাম্মদ আলম ও বালুখালীর ১৮ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পের কে/৩ ব্লকের বাসিন্দা মো. এরশাদ আলীর ছেলে মোহাম্মদ ইয়াছিন।

বিজিবি কর্মকর্তা ফয়সল বলেন, মিয়ানমার থেকে ইয়াবার বড় একটি চালান আসার খবরে বিজিবির একটি দল ঘটনাস্থলে অবস্থান নেয়। এক পর্যায়ে নদী সাঁতরে ৩ জনকে তীরে উঠতে দেখে বিজিবি তাদের থামার নির্দেশ দেন। এ সময় তারা তীরে উঠে দৌড়ে পালানোর চেষ্টা করে। বিজিবি সদস্যরা তাদের ধাওয়া দিলে তারা গুলি ছোড়ে। এতে বিজিবির দুই জওয়ান আহত হন। আত্মরক্ষার্থে বিজিবি পাল্টা গুলি করে। এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলে দুজনকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় পাওয়া যায়। উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদের তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

এ ছাড়া ঘটনাস্থলের আশপাশে তল্লাশি করে ৫০ হাজার ইয়াবা, ১টি চায়নিজ পিস্তল ও ২টি গুলি উদ্ধার করা হয়েছে বলে জানান বিজিবির এ কর্মকর্তা।

advertisement