advertisement
advertisement

প্রকাশ্যে যশোরে গুলি করে হত্যা

যশোর প্রতিনিধি
১০ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৯ জুলাই ২০২০ ২২:৪৩
advertisement

মণিরামপুরে দিনে-দুপুরে রফিকুল ইসলাম রফিক নামে এক ব্যক্তিকে গুলি করে ও গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। গতকাল দুপুর দেড়টার দিকে উপজেলার দিগঙ্গা কুচলিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পাশে এ ঘটনা ঘটে। মণিরামপুর থানাপুলিশ ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করেছে। একইসঙ্গে লাশের পাশে পড়ে থাকা রফিকুলের ইজিবাইকটিও উদ্ধার করেছে।

রফিকুল উপজেলার মধুপুর গ্রামের মৃত আমারত আলীর ছেলে। তিনি একসময় নিষিদ্ধ ঘোষিত পূর্ববাংলার

কমিউনিস্ট পার্টির আঞ্চলিক কমান্ডার ছিলেন। পরে তিনি স্বাভাবিক জীবনে ফেরেন।

স্থানীয় কুচলিয়া এলাকার ইউপি সদস্য প্রণব কুমার বিশ্বাস জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে সুন্দলি বাজারে যাত্রী নামিয়ে মণিরামপুরের দিকে যাচ্ছিলেন রফিকুল। দিগঙ্গা-কুচলিয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের পাশে ফাঁকা স্থানে দুর্বৃত্তরা তাকে গুলি করে ও গলা কেটে হত্যা করে লাশ এবং ইজিবাইকটি ফেলে চলে যায়। তিনি আরও বলেন, এক সময় রফিকুল খুব দুর্ধর্ষ ছিলেন। পরে তিনি স্বাভাবিক জীবনে ফেরেন। কয়েক বছর ধরে তিনি ইজিবাইক চালিয়ে সংসার চালাতেন।

মণিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম বলেন, কে বা কারা প্রকাশ্যে রফিককে গুলি করে ও গলা কেটে হত্যা করেছে তা এখনো জানা যায়নি। নিহতের ডান বুকে ও ডান বাহুতে দুটি গুলির চিহ্ন এবং গলায় ধারালো অস্ত্রের কোপের দাগ রয়েছে। রফিকের নামে থানায় একাধিক মামলা রয়েছে। তার ইজিবাইকটি উদ্ধার করে হেফাজতে নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ উদ্ধার করে যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

যশোরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ডিএসবি) মোহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম বলেন, হত্যাকারীদের আটকে এরইমধ্যে কাজ শুরু করেছে পুলিশ। হত্যার বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

advertisement