advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

‘চ্যাপেল একা দায়ী নয়’

ক্রীড়া ডেস্ক
১১ জুলাই ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ১১ জুলাই ২০২০ ০০:১০
advertisement

কলকাতার মহারাজা জাতীয় দলকে বিদায় বলেছেন অনেকি দন আগে। এখন তিনি ভারত ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) প্রধান। তার পরও অতীতের দুঃসহ স্মৃতি তাকে বারবার তাড়া করে ফেরে। যেভাবে ভারত দল থেকে বাদ দেওয়া হয়েছিল, নেতৃত্ব কেড়ে নেওয়া হয়েছিল তা যে কোনোভাবেই মেনে নিতে পারেননি। সৌরভ গাঙ্গুলী বলেন, ‘নেতৃত্ব কেড়ে নেওয়াটা ছিল তার ক্রিকেট ক্যারিয়ারে সবচেয়ে বড় ধাক্কা। দল থেকে বাদ পড়ার পেছনে তখনকার অজি কোচ গ্রেগ চ্যাপেলকে একা দোষারোপ করেননি সৌরভ। সঙ্গে আরও অনেকের দিকেই আঙুল তুলেছেন তিনি। সৌরভের কথায়, আমি গ্রেগ চ্যাপেলকে একা দোষ দেব না। ও হয়তো শুরুটা করেছিল। আমি মনে করি, একজন বিদেশি কোচের কথায় আমার নেতৃত্ব চলে যেতে পারে না। গোটা সিস্টেম সাপোর্ট করেছিল গ্রেগকে। তাদের সমর্থন ছাড়া এটা হতে পারে না। আমাকে বাদ দেওয়ার পেছনে অনেকের হাত ছিল। অনেকেই জড়িয়ে ছিল। কিন্তু চাপের মুখে আমি ভেঙে পড়িনি।’

সৌরভ গাঙ্গুলী আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে গুডবাই বলে দিয়েছেন ২০০৮ সালে। ১২ বছর পর তিনিই কিনা বিসিসিআই প্রধান। সৌরভের ক্রিকেট ক্যারিয়ারে গ্রেগ চ্যাপেল জামানার কালো ছায়া বারবার ফিরে ফিরে আসে। ২০০৫ সালে গাঙ্গুলীর কাছ থেকে নেতৃত্বের ঝা-া কেড়ে নেওয়া হয়েছিল। সে সময় রীতিমতো ভেঙে পড়েছিলেন বাংলার মহারাজ। তিনি মনে করেন, সে সময় তার সঙ্গে খুব অন্যায় করা হয়েছিল। সৌরভ গাঙ্গুলী বলেন, ‘নেতৃত্ব কেড়ে নেওয়াটা ছিল আমার ক্রিকেট ক্যারিয়ারের জন্য সবচেয়ে বড় ধাক্কা। খুব অন্যায় হয়েছিল। আমি জানি আপনি সর্বদা ন্যায়বিচার পেতে পারেন না, কিন্তু তার পরও তা সহজেই এড়ানো যেত।

advertisement