advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

মুন্সীগঞ্জে পদ্মার ভাঙন
শিমুলিয়ায় ৪ নম্বর ফেরিঘাট বিলীন

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি
৭ আগস্ট ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ৭ আগস্ট ২০২০ ০৯:১০
বিলীন হয়ে গেছে শিমুলিয়ায় ৪ নম্বর ফেরিঘাট
advertisement

মুন্সীগঞ্জের লৌহজং উপজেলার শিমুলিয়ায় আবার পদ্মার ভাঙন শুরু হয়েছে। দ্বিতীয় দফা ভাঙনের কবলে বিলীন হয়ে গেছে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটের বিআইডব্লিউটিসি শিমুলিয়া ৪ নম্বর ফেরিঘাট। বুধবার রাত আড়ইটার দিকে ভাঙন শুরু হয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার ভোর সাড়ে ৫টার দিকে ৪ নম্বর ফেরিঘাটটি বিলীন হয়ে যায়।

এ দিকে দুর্ঘটনা এড়াতে সকাল ৭টা থেকে শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে ফেরিসহ সব ধরনের নৌযান চলাচল বন্ধ করে দেয় ঘাট কর্তৃপক্ষ। দুপুর সাড়ে ১২টার পর থেকে ১ নম্বর ঘাট দিয়ে চারটি ছোট আকারে ফেরি চলাচল করছে। এর পরও শিমুলিয়া ঘাট এলাকায় ভাঙন অব্যাহত রয়েছে।

এ নিয়ে ৯ দিনের ব্যবধানে দ্বিতীয় দফা ভাঙনে শিমুলিয়ার চারটি ফেরিঘাটের মধ্য দুটি ঘাট পদ্মায় বিলীন হয়েছে। এর আগে গত ২৮ জুলাই ভেঙে যায় ৩ নম্বর রো রো ফেরিঘাট। এর পর পরই পদ্মা সেতু প্রকল্প এলাকায় ভাঙন শুরু হয়। এতে প্রকল্প এলাকার পদ্মা সেতুর ৪০টি রোডওয়ে স্ল্যাবসহ বেশ কিছু অংশ বিলীন হয়ে যায়। বিআইডব্লিউটিএর প্রকৌশলী হারিস আহম্মেদ জানান, গত কয়েক দিনে শিমুলিয়া ঘাটের তিন লাখ বর্গফুট এলাকা পদ্মায় বিলীন হয়ে গেছে। ভাঙনরোধে বালুভর্তি জিও ব্যাগ ফেলা অব্যাহত রয়েছে।

ভাঙন এলাকা সার্ভে করা হচ্ছে, এর পর পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।বিআইডব্লিউটিসির শিমুলিয়া ঘাটের ব্যবস্থাপক সাফায়েত আহমেদ জানান, রাত আড়াইটার দিকে ভাঙন শুরু হয়। এর মধ্যেই ৪ নম্বর ফেরিঘাটটিসহ এপ্রোচ সড়ক ও ঘাটের কয়েকশ ফুট জায়গা নদীতে বিলীন হয়ে গেছে। বর্তমানে পদ্মার ভাঙন ২ নম্বর ভিআইপি ঘাটের দিকে অগ্রসর হচ্ছে।

 

 

advertisement
Evaly
advertisement