advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ঢাকায় তরুণীসহ দুজনের অস্বাভাবিক মৃত্যু

ঢামেক প্রতিবেদক
১২ আগস্ট ২০২০ ১৮:৩৭ | আপডেট: ১২ আগস্ট ২০২০ ১৮:৩৭
প্রতীকী ছবি
advertisement

ঢাকায় পৃথক ঘটনায় তরুণীসহ দুজনের অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে। মৃতরা হলেন-গুলশানে আতুরী মারমা (১৭) ও বাড্ডায় সজল হোসেন (২৩)।

ময়নাতদন্তের জন্য তাদের মৃতদেহ উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) মর্গে পাঠিয়েছে সংশ্লিষ্ট থানা পুলিশ।

গুলশান থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. সাদেক মিয়া জানিয়েছেন আজ বুধবার বেলা সাড়ে এগারোটায় গুলশান ১ এর ১৪০ নম্বর রোডের এক নম্বর বাসার তৃতীয় তলার ফ্লাট থেকে ঝুলন্ত মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়। আইনি প্রক্রিয়া শেষে লাশ মর্গে পাঠানো হয়।
পরিবারের বরাদ দিয়ে তিনি জানান, মৃতের বাবার সঙ্গে টাকা-পয়সা নিয়ে মনমালিন্যের কারণে আতরী মারমা গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেন।
এসআই জানান, খাগড়াছড়ি জেলার গুইমারী উপজেলার সিন্দুকছড়ী গ্রামের আজবের মেয়ে আতরী। এ ছাড়াও এ ঘটনার অন্য কোনো কারণ রয়েছে কি না তা ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে জানা যাবে বলেও জানান তিনি।

অপরদিকে, বাড্ডা থানার এসআই শাহ আলম জানান, বাড্ডা ডিআইটি প্রজেক্টের ৪ নম্বর রোডের ল-৪০/২/এ, টিনসেট বাসা থেকে সকাল সোয়া নয়টার সময়ে মৃতের বড় ভাই মনির হোসনের শনাক্তে সজলের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়। সজল কেএফসি নামে একটি ফাস্টফুড দোকানে কাজ করত।
এসআই আরও জানান, কী কারণে সে গলায় ফাঁস লাগিয়েছে, সে ব্যাপারে কিছু জানা যায়নি। সজল তার দাদির বাসায় থাকত। ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

advertisement
Evaly
advertisement