advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

সব খবর

advertisement

সাকিব থাকলে দলের শক্তি বাড়ে, শ্রীলঙ্কায় খেলা নিয়ে আকরাম খান

ক্রীড়া প্রতিবেদক
১২ আগস্ট ২০২০ ১৮:৪৪ | আপডেট: ১২ আগস্ট ২০২০ ২২:৩১
সাকিব আল হাসান। পুরোনো ছবি।
advertisement

অক্টোবরের শেষে বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের আইসিসি কর্তৃক দেওয়া নিষেধাজ্ঞা শেষ হবে। এই অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে শুরু হবে বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট। সিরিজের প্রথম ম্যাচে খেলতে পারবেন না, কিন্তু বাকিগুলোতে নিষেধাজ্ঞা থাকছে না। তাহলে সাকিব কি শ্রীলঙ্কার বিপক্ষেই ফিরছেন?

তবে সাবিকের বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছায়নি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। আজ বুধবার বিসিবিতে বোর্ড মিটিংয়ে শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে বিস্তর আলোচনা হয়েছে। এর মধ্যে সাকিবের বিষয়টিও আলোচনায় ছিল।

সাকিবের বিষয়টি খুঁটিনাটি আলোচনা হলেও এখন পর্যন্ত কোনো সিদ্ধান্তে পৌঁছায়নি বোর্ড। এটা নিয়ে আইসিসির সঙ্গে আলোচনা করার কথা জানিয়েছেন ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান আকরাম খান। তবে তিনি জানিয়েছেন, সাকিবের মতো খেলোয়াড় দলে থাকলে শক্তি অনেক বেড়ে যায়, বিষয়টি তাদের মাথায় আছে।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সাকিবের ফেরা নিয়ে এক প্রশ্নে আকরাম খান বলেন, ‘সে ফ্রি হবে ২৯ অক্টোবর। আমরা যতটুকু জানি, সে টিমের সাথে অনুশীলন করতে পারবে না। সুতরাং এটা আমাদের আলোচনা করতে হবে কোচের সাথে, সাকিবের সাথে। বোর্ড সভাপতির সাথেও আলাপ করতে হবে। এজেন্ডায় ছিল, আলাপ হয়েছে আজ কিন্তু চূড়ান্ত কোন জায়গায় পৌছাইনি।‘

বিস্তারিত নিয়ম-নীতি জানার জন্য আইসিসির সঙ্গে কথা বলার কথা জানিয়ে আকরাম খান বলেন, ‘কী কী নিয়ম আছে, আইসিস থেকে সেটা আমরা জেনে তারপরেই এগোবো। এখনো কিন্তু আলাপ আলোচনা বাকি আছে। ব্যাপার আছে, প্র্যাকটিসের, ফিটনেসের ব্যাপারগুলো মিলিয়ে আমাদের চিন্তা করতে হবে।’ 

বাংলাদেশ দলের শ্রীলঙ্কা সফরের কথা রয়েছে সেপ্টেম্বরের ২৩-২৪ তারিখ। এর আগে দেশে প্রস্তুতি ক্যাম্প হবে। শ্রীলঙ্কাতে যাওয়ার পর করোনা টেস্ট ও কোয়ারিন্টেনের কথা রয়েছে। নির্ধারিত তিন টেস্টের প্রথম টেস্ট শুরু হতে পারে ২৪ অক্টোবর। বাকি দুই টেস্ট নভেম্বরে। এ ছাড়া তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলার কথাও রয়েছে। অর্থ্যাৎ ফিট থাকলে আর বিসিবি চাইলে শ্রীলঙ্কা সিরিজেই ফিরতে পারেন সাকিব।

শ্রীলঙ্কা সফর নিয়ে আকরাম খান বলেন, ‘আমরা মোটামুটি একটা পরিকল্পনা করেছি। সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝি সময়ে দেশে হয়তো ১০-১২ দিন অনুশীলন করে শ্রীলঙ্কায় চলে যাবো এইচপি টিমকে নিয়ে। সেখানে আমরা ২-০২৫ দিন একসাথে অনুশীলন করব। তারপর তো অক্টোবরের ২৪ তারিখ আমাদের খেলা আছে।‘

সাকিবকে দলে পাওয়া নিয়ে আকরাম খান বলেন, ‘অবশ্যই সে আমাদের অনেক গুরুত্বপূর্ণ একজন খেলোয়াড়। সে দলে থাকলে বাংলাদেশের শক্তি অনেক বেড়ে যায়। সুতরাং এটাতো আমাদের মাথায় আছে।’

advertisement
Evaly
advertisement