advertisement
advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ব্রিটিশ পার্লামেন্টে ব্রেক্সিট পাস

হেফাজুল করিম রকিব, লন্ডন থেকে
১৬ সেপ্টেম্বর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ১৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ ২২:৩১
advertisement

যুক্তরাজ্যে ক্ষমতাসীন কনজারভেটিভ দলের সদস্যসহ দেশটির একাধিক সাবেক প্রধানমন্ত্রীর প্রত্যক্ষ বিরোধিতার মধ্যেই ইউরোপীয় ইউনিয়নের সঙ্গে ব্রেক্সিট চুক্তি ভঙ্গের বহুল আলোচিত আইনটি পাস করেছে সরকার। হাউস অব কমন্সের ৩৪০ ভোটের মধ্যে ২৬৩টি ভোট পড়েছে আইনটি পাস করার পক্ষে। টোরির ৩০ সদস্য ভোট প্রদান থেকে বিরত থাকেন এবং দুজন বিপক্ষে ভোট দেন। এ বিলটির মাধ্যমে ব্রিটিশ সরকার এখন ইইউর সঙ্গে বিচ্ছেদ চুক্তির একটি অংশ কর্তন

করে নিজেরাই উত্তর আয়ারল্যান্ড ও ব্রিটেনের সঙ্গে বাণিজ্য যোগাযোগ রক্ষা করতে পারবে।

ব্রিটেনের সাবেক প্রধানমন্ত্রী জন মেজর, জন ব্লেয়ার, গর্ডন ব্রাউন, ডেভিড ক্যামেরন ও থেরেসা মে এ বিলের বিরুদ্ধে প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। সাজিদ জাভিদ ও জিওফ্রো কক্সও বলেছেন, তারা বরিসের এ প্রস্তাবকে সমর্থন করছেন না।

লেবার পার্টির ছায়া বাণিজ্যমন্ত্রী এড মিলিব্যান্ড বরিস জনসনের সমালোচনা করে বলেন, প্রধানমন্ত্রী জনগণকে বোকা বানিয়েছেন। এটি আমাদের দেশের উদারপন্থি গণতন্ত্র ও আইনের শাসনের লঙ্ঘন।

স্কটিশ ন্যাশনাল পার্টি বলছে, এ বিল আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন, স্কটল্যান্ডের গণতন্ত্রের ওপর হামলা, এনএইচ ও জনসেবা খাতের জন্য হুমকি এবং জনগণের ইচ্ছের বিরুদ্ধে চরমপন্থি ব্রেক্সিটের বাস্তবায়ন। এদিকে ইইউ জনসনের অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলেছে, সেপ্টেম্বরের মধ্যে যদি এ বিলের প্রস্তাবনা বাতিল করা না হয় তবে তারা ব্রিটেনের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেবে।

advertisement
Evaly
advertisement