advertisement
advertisement
advertisement
DBBL
advertisement
advertisement

বার্সেলোনার বড় জয়

ক্রীড়া ডেস্ক
২২ অক্টোবর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ২১ অক্টোবর ২০২০ ২৩:৩৮
advertisement

হাঙ্গেরির দল ফেরেঙ্কভারোসিকে ৫-১ গোলে উড়িয়ে দিয়ে চ্যাম্পিয়নস লিগের নতুন মৌসুম শুরু করেছে বার্সেলেনো। গত মৌসুমে বায়ার্ন মিউনিখের কাছে বিধ্বস্ত হয়ে বিদায় নেওয়ার পর এটাই কাতালান জায়ান্টদের প্রথম কোনো ইউরোপিয়ান ম্যাচ। ন্যু ক্যাম্পে লিওনেল মেসির পেনাল্টির সঙ্গে ১৭ বছর বয়সী আনসু ফাতি এক গোল করেছেন ও ফিলিপ কোতিনহোকে দিয়ে এক গোল করিয়েছেন। বাকি দুটি গোল এসেছে পেড্রি ও ওসমান ডেম্বেলের হাত ধরে। ফেরেঙ্কভারোসির নরওয়েজিয়ান অ্যাটাকার টোকমাক নগুয়েনকে পেনাল্টি এরিয়ার মধ্যে ফাউলের অপরাধে জেরার্ড পিকে লালকার্ড পেলে ৬৮ মিনিটের পর থেকে বাকি সময়টা ১০ জন নিয়েই খেলতে হয়েছে বার্সেলেনোকে। সফরকারীদের হয়ে এক গোল পরিশোধ করেছে ইহোর খারাতিন। শনিবার রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে মৌসুমের প্রথম এল ক্ল্যাসিকোর আগে কিছুটা হলেও আত্মবিশ^াস ফিরে এলো বার্সা শিবিরে। ম্যাচ শেষে ফাতি বলেছেন, ‘আমরা এই ম্যাচ থেকে সম্ভাব্য আত্মবিশ^াস ফিরে পাওয়ার আশা করেছিলাম। সামনে আমাদের ক্ল্যাসিকো, যে ম্যাচটিতে খেলার স্বপ্ন আমি সব সময়ই দেখে থাকি।’ বড় এ জয়ে গ্রুপ-জির শীর্ষে থাকল বার্সেলোনা। কিন্তু পিকের লালকার্ডের কারণে আগামী সপ্তাহে জুভেন্টাস সফরে দলের এই অভিজ্ঞ ডিফেন্ডারকে পাচ্ছে না রোনাল্ড কোম্যানের দল। ২৭ মিনিটে বল জালে পাঠিয়ে আরও একটি নতুন রেকর্ড গড়েছেন মেসি। চ্যাম্পিয়নস লিগের ইতিহাসে মাত্র দ্বিতীয় খেলোয়াড় হিসেবে টানা ১৬ মৌসুমে গোল করার কীর্তি গড়া হয়েছে তার। মেসি ভাগ বসিয়েছেন রায়ান গিগসের রেকর্ডে। চ্যাম্পিয়নস লিগের ইতিহাসে একটানা এতগুলো মৌসুম গোল করার রেকর্ড নেই আর কারও।

এসবের আগে ফেরেঙ্কভারোসির বিপক্ষে শুরুটা আত্মবিশ্বাসী ছিল না বার্সেলোনার। প্রথম দশ-পনেরো মিনিটে বল দখলে এবং প্রাণবন্ত ফুটবলের দিক দিয়ে বার্সেলোনা কিছুটা পিছিয়ে ছিল হাঙ্গেরিয়ান ক্লাব ফেরেঙ্কভারোসির চেয়ে। এমনকি দশম মিনিটে ফেরেঙ্কভারোসির স্ট্রাইকার তরমাক এনগুয়েন একবার বল জালেও পাঠিয়েছিলেন, তবে অফসাইডের জন্য বাতিল হয়ে যায়। তবে সময় গড়ানোর সঙ্গে সঙ্গে বার্সেলোনার সঙ্গে ফেরেঙ্কভারোসির পার্থক্য পরিষ্কার হয়ে যায়। শুরুর জড়তা কাটিয়ে বার্সেলোনা গতিময় এবং বুদ্ধিদীপ্ত ফুটবল খেলা শুরু করে। ২৭ মিনিটে হেলায় একটি পেনাল্টি হজম করে বসে ফেরেঙ্কভারোসি। মেসি ডান প্রান্ত দিয়ে দারুণভাবে একজনকে কাটিয়ে বক্সে ঢুকে যান, আর তখন পা ছড়িয়ে তাকে ফাউল করে বসেন সেন্টার ব্যাক কোভাসেভিচ। আর সেই গোলের পর প্রথমার্ধের বাকি সময়টা একমুখী ট্রাফিক চলে। ৪২ মিনিটে ফ্রেংকি ডি ইয়ংয়ের শূন্যে ভাসানো ফরোয়ার্ড বলে ফার্স্ট টাইম শটে বল জালে জড়ান বার্সেলোনার ১৭ বছর বয়সী ফরোয়ার্ড ফাতি। চ্যাম্পিয়নস লিগের ইতিহাসে প্রথম খেলোয়াড় হিসেবে ১৮ পেরোনোর আগেই একের অধিক গোলের মালিক হয়েছেন ফাতি। প্রথম গোলের পর থেকে পাওয়া আধিপত্য দ্বিতীয়ার্ধেও ধরে রাখে বার্সেলোনা।

advertisement
Evaly
advertisement