advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

সংবাদ সম্মেলন রোববার
সরকারের কাছে অবস্থান পরিষ্কার করব : রাবি উপাচার্য

নিজস্ব প্রতিবেদক
২৩ অক্টোবর ২০২০ ১৭:৩৯ | আপডেট: ২৩ অক্টোবর ২০২০ ২১:০৯
রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক এম আবদুস সোবহান
advertisement

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উপাচার্য এম আবদুস সোবহান, ‍উপ-উপাচার্য চৌধুরী মো. জাকারিয়া ও ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এম এ বারীসহ প্রশাসনের একাধিক ব্যক্তির বিরুদ্ধে ওঠা ২৫টি অভিযোগের প্রমাণ পেয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের (ইউজিসি) গঠিত তদন্ত কমিটি। দুর্নীতির মাধ্যমে তাদের ‘নৈতিকতার মারাত্মক স্খলন’ হয়েছে বলে মনে করছেন তারা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে আজ শুক্রবার দৈনিক আমাদের সময় অনলাইনকে উপাচার্য এম আবদুস সোবহান জানান, আগামী রোববার বেলা ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিনেট ভবনে সংবাদ সম্মেলন করে সরকার ও জাতির কাছে নিজের অবস্থার পরিষ্কার করবেন।

উপাচার্য বলেন, ‘আমি ওই দিনই সব ক্লিয়ার (পরিষ্কার) করব। যে অভিযোগুলো আছে, সেগুলোর সমস্ত কিছুই স্বচ্ছভাবে তুলে ধরব। এটা আমি মনে করি যে, জাতির কাছে এবং সরকারের কাছেও একটা দায়বদ্ধতা, আমার অবস্থানটাকে পরিষ্কার করা।’

 প্রসঙ্গত, চলতি বছরের ৪ জানুয়ারি রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের আওয়ামীপন্থী শিক্ষকরা স্বাক্ষর করে ৩০০ পৃষ্ঠার অভিযোগপত্র সংবলিত একটি নথিপত্র প্রধানমন্ত্রী, শিক্ষা মন্ত্রণালয়, দুদক ও ইউজিসি বরাবর পাঠান। সেই অভিযোগের ভিত্তিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে একটি গঠিত তদন্ত কমিটি করে ইউজিসি। ওই কমিটির প্রধান ইউজিসির সদস্য অধ্যাপক ড. দিল আফরোজা বেগম। বিস্তর তদন্ত করে ওই কমিটি প্রতিবেদন জমা দেয়। ২৫টি অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় প্রতিবেদনে এসব বিষয়ে ব্যবস্থা নিতে ১১ দফার সুপারিশ করেছে ইউজিসির তদন্ত কমিটির সদস্যরা। পরে তদন্ত কমিটির সেই প্রতিবেদন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়, শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও দুর্নীতি দমন কমিশনে পাঠানো হয়।

আরও পড়ুন :

রাবি উপাচার্যের ‘নৈতিক স্খলন’ প্রমাণিত, যা আছে ইউজিসির সুপারিশে

advertisement
Evaly
advertisement