advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

রায়হান হত্যা : কনস্টেবল হারুন ৫ দিনের রিমান্ডে

নিজস্ব প্রতিবেদক
২৪ অক্টোবর ২০২০ ২০:১৭ | আপডেট: ২৪ অক্টোবর ২০২০ ২০:১৭
advertisement

সিলেটের বন্দরবাজার ফাঁড়িতে পুলিশি নির্যাতনে রায়হান আহমদের মৃত্যুর ঘটনায় দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তার কনস্টেবল হারুনুর রশীদকে পাঁচ দিনের রিমান্ড দিয়েছেন আদালত। আজ শনিবার বিকেলে তাকে সিলেট মহানগর হাকিম শারমিন খানম নীলার আদালতে হাজির করে সাত দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। আদালত শুনানি শেষে পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

পিবিআইয়ের পরিদর্শক ও এ মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মুহিদুল ইসলাম আদালতে উপস্থিত সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেন। এর আগে, গতকাল রাতে সিলেট পুলিশ লাইন্স থেকে হারুনুর রশীদকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)। এ নিয়ে মামলায় দুজন কনস্টেবল গ্রেপ্তার হলেন।

প্রসঙ্গত, গত ১১ অক্টোবর ভোরে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে গুরুতর আহত অবস্থায় নেওয়ার পরে মৃত্যুবরণ করেন নগরীর আখালিয়া নেহারীপাড়ার বাসিন্দা রায়হান আহমেদ। পরদিন পুলিশ ফাঁড়িতে নির্যাতনে মৃত্যুর অভিযোগ এনে অজ্ঞাতনামা আসামিদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন রায়হানের স্ত্রী তাহমিনা আক্তার।

সেদিনই ফাঁড়ির ইনচার্জ ও উপপরিদর্শক আকবর হোসেন ভুঁইয়া, কনস্টেবল হারুনুর রশীদ, কনস্টেবল টিটু চন্দ্র দাশ এবং কনস্টেবল তৌহিদ মিয়াকে সাময়িক বরখাস্ত এবং এএসআই আশেক আলী, এএসআই কুতুব আলী ও কনস্টেবল সজীব হোসেনকে প্রত্যাহার করা হয়।

গত ১৯ অক্টোবর ওই ঘটনায় সিলেট আদালতে সাক্ষ্যমূলক জবানবন্দি দেন ফাঁড়ির তিন কনস্টেবল। ২০ অক্টোবর বরখাস্তকৃত কনস্টেবল টিটু চন্দ্র দাশকে গ্রেপ্তার করে পিবিআই। আদালত তাদের পাঁচ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। এই হত্যাকাণ্ডের মূল সন্দেহভাজন ফাঁড়ির ইনচার্জ উপপরিদর্শক আকবর হোসেন ভুঁইয়া এখনো পলাতক।

advertisement
Evaly
advertisement