advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

করোনায় বগুড়ায় মৃত্যু আরেক চিকিৎসকের

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া
২৬ অক্টোবর ২০২০ ০০:০০ | আপডেট: ২৫ অক্টোবর ২০২০ ২২:২৬
advertisement

করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে বগুড়ায় আরও এক চিকিৎসকের মৃত্যু হয়েছে। তার নাম ডা. একেএম মাসুদুর রহমান (৬০)। তিনি বগুড়া টিএমএসএস মেডিক্যাল কলেজ ও রফাতুল্লাহ কমিউনিটি হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ছিলেন। গতকাল রবিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। টিএমএসএসের উপনির্বাহী পরিচালক ডা. মতিউর রহমান জানান, অধ্যাপক ডা. একেএম মাসুদুর রহমান ওই হাসপাতালে কোভিড-১৯ ম্যানেজমেন্টের

সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। তিনি করোনায় আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসাসেবা দিতেন।

টিএমএসএস মেডিক্যাল কলেজ ও রতফাতুল্লাহ কমিউনিটি হাসপাতালের মুখপাত্র আবদুুর রহিম রুবেল জানান, করোনা উপসর্গ দেখা দেওয়ায় গত ৪ অক্টোবর নমুনা পরীক্ষায় অধ্যাপক ডা. একেএম মাসুদুর রহমান করোনা পজিটিভ শনাক্ত হন। পরে গত ১২ অক্টোবর বিকালে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে তাকে ঢাকায় স্কয়ার হাসপাতালে নেওয়া হয়। সেখানে ১৬ ও ২০ অক্টোবর নমুনা পরীক্ষাতেও তিনি করোনা পজিটিভ ছিলেন। অবশ্য গত ২৪ অক্টেবারের পরীক্ষায় তার রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। কিন্তু ততদিনে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটে। রবিবার ডা. মাসুদকে আইসিইউতে নেওয়া হয় এবং সেখানেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় সন্ধ্যা ৬টায় তার মৃত্যু হয়।

অধ্যাপক ডা. একেএম মাসুদুর রহমান টিএমএসএস মেডিক্যাল কলেজে যোগদানের আগে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে মেডিসিন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ছিলেন।

করোনায় আক্রান্ত হয়ে এর আগে বগুড়ায় আরও তিন চিকিৎসকের মৃত্যু হয়েছে। তারা হলেন- সিরাজগঞ্জ শহীদ এম মনসুর আলী মেডিক্যাল কলেজের অর্থোপেডিক্স বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডা. রেজোয়ানুল বারী শামিম, বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজের গাইনি বিভাগের সাবেক সহকারী অধ্যাপক ডা. শামস শায়লা বানু ও স্বাস্থ্য শিক্ষা অধিদপ্তরের অল্টারনেটিভ মেডিক্যাল কেয়ার (এএমসি) বিভাগের পরিচালক ডা. আবদুল লতিফ।

advertisement
Evaly
advertisement