advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

ধর্ষিতা চরিত্রে ফারিন

বিনোদন প্রতিবেদক
২৯ অক্টোবর ২০২০ ১৭:১২ | আপডেট: ২৯ অক্টোবর ২০২০ ১৭:৩৯
‘গল্পটা আমার’ টেলিছবির একটি দৃশ্য
advertisement

রক্ষণশীল পরিবারের মেয়ে ফারিন। জন্মদিন পালন করতে প্রেমিকের বাসায় যায়। রাতে সেখান থেকে ফেরার পথে গাড়ির জন্য রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকে। অনেকক্ষণ অপেক্ষা করে কোন গাড়ি পাচ্ছিল না সে। এদিকে বাসা থেকে তার বাবা বারবার ফোন করে। একটা সময় এক মাইক্রোবাস তার সামনে দাঁড়ায়। চালক কোথায় যাবেন বলে ডাকাডাকি করেন।

ফারিন গন্তব্য বললে চালক তাকে গাড়িতে উঠতে বলেন। গাড়িতে আরও কয়েকজন লোক ছিল। ফারিন একটু দ্বিধা করলেও বোরকা পরা একজনকে দেখে আশ্বস্ত হয়। কিছুদূর যাওয়ার পর গাড়ির ভেতরের লোকজনের আচরণ তার ভেতরে সংশয় তৈরি করে। নেমে যাবে সে উপায়ও নেই। তারা গাড়ি থামাচ্ছে না। একপর্যায়ে হাত-মুখ বেঁধে গাড়ির ভেতর তাকে ধর্ষণ করে রাস্তায় ফেলে যায়।

জ্ঞান ফেরার পর নিজেকে হাসপাতালের বিছানায় দেখতে পায় ফারিন। সুস্থ হওয়ার পরও স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে পারে না সে। ঘটনা জানার পর তার প্রেমিক তাকে প্রত্যাখ্যান করে। মানসিকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়ে সে।

এমনই এক গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে টেলিছবি ‘গল্পটা আমার’। অর্পিতা সরকারের গল্প অবলম্বনে এর চিত্রনাট্য ও পরিচালনা করেছেন অভিজিৎ ঘোষ শুভ। অভিনয় করেছেন মনোজ কুমার, তাসনিয়া ফারিন, জয়ন্ত চট্টোপাধ্যায় প্রমুখ।

নির্মাতা অভিজিৎ ঘোষ শুভ জানান, আগামী শনিবার রাত সাড়ে ৮টায় ‘গল্পটা আমার’ প্রচার হবে মাছরাঙা টেলিভিশনে।

advertisement
Evaly
advertisement