advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা

সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি
২১ নভেম্বর ২০২০ ১৭:৫১ | আপডেট: ২১ নভেম্বর ২০২০ ১৭:৫১
advertisement

নীলফামারীর সৈয়দপুরে নবম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। আজ শনিবার সকালে ওই স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন।

মামলার আসামি হলেন, সৈয়দপুর উপজেলার বাঙ্গালীপুর ইউনিয়নের লক্ষণপুর বালাপাড়া (ব্রাক্ষনপাড়া) গ্রামের আকতারুজ্জামান। তিনি বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) একজন সৈনিক এবং বর্তমানে ঢাকা পিলখানা বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের প্রধান কার্যালয়ে কর্মরত রয়েছেন বলে জানা গেছে।

মামলার সূত্র মতে, সৈনিক আকতারুজ্জামান একই এলাকার ওই স্কুলছাত্রীকে গত সোমবার (৯ নভেম্বর) বিকেলে ৫টার দিকে তার বাবা-মার অনুপস্থিতিতে বাড়ি থেকে মোটরসাইকেলে তুলে সৈয়দপুর শহরের নিয়ে আসেন। এরপর একটি ক্লিনিকে নিয়ে গিয়ে অচেতন করে ধর্ষণ করেন এবং পরদিন মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে বাড়ির সামনে নামিয়ে দিয়ে চলে যান। এদিকে ওইদিন থেকেই মেয়ের বাবা-মা মেয়েকে বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করতে থাকেন। পরবর্তীতে অসুস্থ অবস্থায় বাড়িতে ফিরে আসলে তার পরিবারের লোকজন জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলতে থাকে। পরে বাড়িতে রেখে তার চিকিৎসা করা হলে সে সুস্থ না হয়ে আরও অসুস্থ হয়ে পড়ে।

অবস্থা বেগতিক দেখে তাকে গত বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) নীলফামারী আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এরপর সেখান থেকে তাকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওসিসি সেন্টারে রেফার্ড করা হয়। বর্তমানে ওই স্কুলছাত্রী সেখানে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

এ ঘটনায় স্কুলছাত্রীর মা বাদী হয়ে আজ শনিবার সকালে থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।

সৈয়দপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আতাউর রহমান মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি দৈনিক আমাদের সময়কে বলেন, ‘বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। আর ভিটটিম যেহেতু অসুস্থ অবস্থায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে, সেহেতু সুস্থ হয়ে উঠলেই ঘটনার বিষয়ে তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করাসহ তার ডাক্তারী পরীক্ষা করা হবে।’

advertisement
Evaly
advertisement