advertisement
advertisement
advertisement
advertisement

নেই মাস্কের ব্যবহার, জরিমানা গুনছেন পর্যটকরা

সরওয়ার আজম মানিক,নিজস্ব প্রতিবেদক,কক্সবাজার
২২ নভেম্বর ২০২০ ২১:১৫ | আপডেট: ২২ নভেম্বর ২০২০ ২১:১৬
সৈকতে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান
advertisement

বিশ্বের অন্যতম দীর্ঘ সমুদ্র সৈকতের শহর কক্সবাজার। প্রতিদিন হাজার হাজার পর্যটক সৈকতে আসেন আনন্দ করতে। কিন্তু করোনাকালীন এ সময়টিতে নিরানন্দের হার অনেক বেশি। জীবনযাত্রা কিছুটা স্বাভাবিক হওয়ায় বহু পর্যটক আসছেন সৈকত পাড়ে। কিন্তু করোনা থেকে বাঁচতে তাদের নেই মাস্কের কোনো ব্যবহার। তাই অল্প থেকে বেশি- জরিমানা গুনছেন তারা।

কক্সবাজারে করোনার সংক্রমণ রোধে পর্যটকদের মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক করতে মাঠে নেমেছে জেলা প্রশাসন ও পুলিশ। করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবিলায় সৈকতের সবকটি পয়েন্টে অভিযান চালাচ্ছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। আজ রোববার বেলা ১১টায় সৈকতের লাবণী, সুগন্ধা ও কলাতলী পয়েন্টে অভিযানে নামেন জেলা প্রশাসনের তিনজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।

অভিযানে সৈকতের বার্মিজ মার্কেট, বালিয়াড়ি ও সাগর তীরে যেসব পর্যটক ও ব্যবসায়ী মাস্ক ব্যবহার করেননি তাদেরকে জরিমানা করা হয়। বাদ পড়েননি পর্যটকরাও।

ফলে প্রশাসনের অভিযানে মুহূর্তে পাল্টা যায় সৈকত এলাকার চিত্র। জরিমানার ভয়ে ধুম পড়ে মাস্ক কেনার। দুপুর ১টা পর্যন্ত এই অভিযানে মাস্ক ব্যবহার না করায় ৪২ জন পর্যটক ও ব্যবসায়ীর কাছ থেকে ৬০২০ টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।

জেলা প্রশাসক মো. কামাল হোসেন এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, ‘অভিযান অব্যহত থাকবে।’

advertisement
Evaly
advertisement